করোনাভাইরাসের মোকাবিলা জন্য পাকিস্তান জাতীয়ভাবে সবচেয়ে বেশি তৎপরতা দেখাচ্ছে, এমনটা ঘোষণা করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিওএইচও)। খবর, গালফ নিউজ। সংস্থাটি জানায়, কভিড-১৯ নিয়ন্ত্রণে পাকিস্তান দ্রুত পদক্ষেপ নিয়েছে। সরকার নতুন আক্রান্তদের প্রতি পর্যবেক্ষণ বাড়িয়ে দিয়েছে এবং হাসপাতালে বাড়তি সুযোগ সুবিধা যুক্ত করেছে।

ডব্লিউএইচও’র দেশটির প্রধান ডা. পালিথা গুণরত্ন মহিপালা স্থানীয় অনেকগুলো হাসপাতাল ও ল্যাব ঘুরে দেখেন। তিনি বলেন, ‘একই সময় অন্য দেশগুলো যখন আক্রান্তের খবর দিচ্ছে সেখানে পাকিস্তান ভাইরাসটিকে নিয়ন্ত্রণে রেখেছে। এটি প্রশংসনীয়।’ ইসলামাবাদে জিন্নাহ পোস্টগ্র্যাজুয়েট মেডিকেল সেন্টারের (জেপিএমসি) নির্বাহী পরিচালক ডা. সিমিন জামালির সঙ্গে দেখা করেন তিনি।

প্রতিষ্ঠানটি ঘুরে দেখে ডা. মহিপালা জানান, ভাইরাসের উপসর্গ দেখা যাওয়া রোগীদের স্বাস্থ্যসেবা দেয়ার জন্য প্রতিষ্ঠানটির গৃহীত পদক্ষেপ সন্তোষজনক।

এদিকে পাকিস্তানে এখন পর্যন্ত করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৩১ জন। ভাইরাস সংক্রমণ রোধে ইতিমধ্যে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের সিদ্ধান্ত হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়, সরকারি ও বেসরকারি, ভকেশনাল ইনস্টিটিউট এবং মাদ্রাসা।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: