কুমিল্লার হোমনায় স্কুলছাত্রকে পিটিয়ে শিক্ষক কারাগারে

ডেস্ক রিপোর্টঃ কুমিল্লার হোমনায় স্কুলছাত্রকে পেটানোর অভিযোগে আটক হয়েছেন ভিক্টর স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষক মো. আমিনুল ইসলাম। বুধবার শিক্ষককে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

বিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, মো. আমিনুল ইসলাম রিপন ভিক্টর স্কুল এন্ড কলেজের খণ্ডকালীণ শিক্ষক। তার বাড়ি জেলার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার চান্দকুড়া গ্রামে।

আহত স্কুলছাত্র আরাফাত হোসেনকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। সে উপজেলার শ্রীপুর গ্রামের মো. নূরন্নবীর ছেলে।

মঙ্গলবার ওই স্কুলছাত্রকে পেটানোর পর বাবা নূরন্নবী মঙ্গলবার রাতেই হোমনা থানায় মামলা করেন। ঘটনার পরপরই অভিযুক্ত শিক্ষককে আটক করে পুলিশ। আজ বুধবার আটক শিক্ষককে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ।

আহত ছাত্রের বাবা মোঃ নূরন্নবী জানান, গত মঙ্গলবার শিক্ষক আমিনুল ইসলাম রিপন ক্লাসে এক ছাত্রকে দিয়ে ব্ল্যাকবোর্ডে একটি ইংরেজি প্যারাগ্রাফ লিখে ছাত্রদের তা খাতায় উঠাতে বলেন। এটি খাতায় তুলতে গিয়ে আরাফাত হোসেন একটু সময় বেশি চায়। তাতেই শিক্ষক ক্ষিপ্ত হয়ে তাকে পেটান। এতে আরাফাত আহত হলে অন্য শিক্ষকরা তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করায়।

এ ব্যাপারে হোমনা থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) কাজী নাজমুল হক বলেন, ‘প্রথমে ঘটনা জানতে পেরে তাকে আমরা আটক করি। ওই দিনই ছাত্রের বাবা বাদি হয়ে মামলা করেন। আজ বুধবার তাকে আদালতের মাধ্যমে জেলে পাঠানো হয়েছে। আহত ছাত্রের চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।’

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ