কুমিল্লায় পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদক ব্যবসায়ী নিহত

ডেস্ক রিপোর্টঃ কুমিল্লায় পুলিশের সঙ্গে মাদক ব্যবসায়ীদের কথিত বন্দুকযুদ্ধে সাদ্দাম হোসেন (৩৬) নামে এক মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছে। এ সময় এক এএসপি ও থানার ওসিহ ৪ পুলিশ আহত হয়েছে বলে দাবি পুলিশের।

শুক্রবার দিবাগত রাত সোয়া ২টার দিকে জেলার সীমান্তবর্তী চৌদ্দগ্রাম উপজেলার উজিরপুর ইউনিয়নের কড়ইবন রাস্তার মাথায় বন্দুকযুদ্ধের এ ঘটনা ঘটে। নিহত ওই মাদক ব্যবসায়ী চৌদ্দগ্রামের ভাটবাড়ি গ্রামের আবুল হাসেমের ছেলে।

চৌদ্দগ্রাম থানার ওসি মো: আবুল ফয়সাল জানান, চলমান মাদক বিরোধী অভিযান চলাকালে গোপন সূত্রে খবর পেয়ে সহকারী পুলিশ সুপার (চৌদ্দগ্রাম সার্কেল) মো: সাইফুল ইসলামের নেতৃত্বে তিনিসহ (ওসি) পুলিশের একটি দল মাদক উদ্ধার করতে শুক্রবার মধ্যরাতে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক সংলগ্ন চৌদ্দগ্রামের কড়ইবন রাস্তার মাথায় অবস্থার নেন।

এসময় উপজেলার শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী সাদ্দাম হোসেন ও তার সহযোগীরা ওই স্থান দিয়ে মাদক পাচারকালে পুলিশ তাদের আটকের চেষ্টা চালায়। এতে মাদক ব্যবসায়ীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি চালায়। পুলিশও আত্মরক্ষায় পাল্টা ১৪ রাউন্ড গুলি চালায়।

উভয় পক্ষের গুলি বিনিময়ে মাদক ব্যবসায়ী সাদ্দাম গুরুতর আহত হয়। তাকে উদ্ধারের পর কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পর ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ওই অভিযানে পুলিশের এএসপি মো. সাইফুল ইসলাম, চৌদ্দগ্রাম থানার ওসি মো. আবুল ফয়সাল, থানার এএসআই সারোয়ার ও কনস্টেবল সাখাওয়াত হোসেন আহত হয়েছে বলে পুলিশ দাবি করেছে। নিহত সাদ্দামের মরদেহ কুমেক হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে।

ওসি আরও জানান, ঘটনাস্থল থেকে ২শ’ বোতল ফেন্সিডিল ও ৩ রাউন্ড কার্তুজ ভর্তি একটি পাইপগান উদ্ধার করা হয়েছে। নিহত সাদ্দামের বিরুদ্ধে চৌদ্দগ্রামসহ বিভিন্ন থানায় মাদক আইনে ১২টি মামলা রয়েছে।

সূত্রঃ যুগান্তর

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ