কুমিল্লায় বেগুনি পাতার ধান চাষ

ডেস্ক রিপোর্টঃ সবুজ ধান পরিপক্ব হলে সোনালি হয়। মাঠ জুড়ে সবুজ বা সোনালির ধানের হাসি দেখা দেয়, সেখানে মিষ্টি হাওয়া দোল খেয়ে যায়। এটাই বাংলার ধানের মাঠের চিরচেনা রূপ। কিন্তু কুমিল্লার মাঠে এখন বেগুনি ধানের হাসি দেখা যাচ্ছে। প্রথম দেখায় কেউ ভাববে ধান বুঝি পোকায় ধরে বেগুনি হয়ে গেছে।

কুমিল্লার আদর্শ সদর উপজেলার মনাগ্রাম মাঠে এই বেগুনি ধানের চাষ করা হয়েছে। মনাগ্রামের কৃষক মনজুর হোসেন এই ধান চাষ করেন। বেগুনি এই নতুন জাতের ধান দেখতে উত্সুক মানুষ মাঠে ভিড় করছেন।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলা বিভাগে পড়া উদ্ভাবনী কৃষক মনজুর হোসেন বলেন, কৃষি গবেষক  ড.আখতার হামিদ খান ধান উৎপাদনে কুমিল্লার চেহারা পাল্টে দিয়েছেন। কুমিল্লার মাঠ তিনি ফুল ফসলে ভরিয়ে দিয়েছেন। ড.আখতার হামিদ খানের কাজ দেখে তিনি অনুপ্রাণিত হয়েছেন। তিনি পাম গাছ, বিভিন্ন প্রজাতির ফল আর ধান চাষ করে থাকেন। বেগুনি রঙের ধানের অল্পকিছু বীজ এনেছেন সাতক্ষীরার এক কৃষক থেকে। এই ধান প্রতি শতকে ৪০ কেজি উৎপাদন হয়। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও ভালো বলে তিনি জানান।

স্থানীয় উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা ছালেকুর রহমান বলেন, মনজুর হোসেনের ধান খেত দেখে এসেছি। এই রঙের ধান আগে দেখা যায়নি। এই প্রজাতিটি নিয়ে কাজ করছি। ভালো উৎপাদন হলে কৃষকের মাঝে ছড়িয়ে দেওয়া যাবে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: