নিজস্ব প্রতিবেদকঃ কুমিল্লায় পূর্ব বিরোধের জের ধরে সহিদ মিয়া নামে এক সৌদি প্রবাসীকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

মঙ্গলবার দিবাগত রাত ৯টার দিকে জেলার আদর্শ সদর উপজেলার জগন্নাথপুর ইউনিয়নের জোড়ামেহের গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর থেকে ঘাতক ও তার পরিবারের লোকজন পলাতক রয়েছেন।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, জোড়ামেহের গ্রামের মনতাজ আলীর ছেলে সহিদ মিয়া মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে বাড়ি ফিরছিলেন। বাড়ির কাছে পৌঁছামাত্রই একই গ্রামের মৃত কমর আলীর ছেলে রিপন ও সঙ্গীয়রা তাকে উপর্যুপরি কুপিয়ে আহত করেন।

এ সময় সহিদের চিৎকারে স্থানীয় লোকজন এগিয়ে এলে হামলাকারীরা পালিয়ে যান। পরে তাকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

>>আরো পড়ুনঃ  হোমনায় মাদক সেবনের অভিযোগে ৪ জনকে ভ্রাম্যমান আদালতে ৩ মাস করে সাজা

নিহত সহিদ মিয়ার মেয়ে নারগিছ আক্তার জানান, প্রতিবেশী মাহবুব বিভিন্ন সময় তার বাবাকে প্রাণনাশের হুমকি-ধমকি দিয়ে আসছিল। ওই বিরোধের জের ধরে মাহবুব ও তার ভাই রিপন তাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে।

কোতয়ালি মডেল থানার ওসি মোহাম্মদ আবু ছালাম মিয়া জানান, মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে। আসামিদের গ্রেফতারে পুলিশের তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ