কুমিল্লায় সৎ মা কেড়ে নিলো শিশু মিলির প্রাণ

ডেস্ক রিপোর্টঃ কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে সৎ মায়ের বাপের বাড়ীতে মিলি নামের ৭ বছরের এক শিশুর মৃত্যুর অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় নিহতের সৎ মা কামরুন্নাহারকে বিকেলে আটক করে পুলিশ। নিহত মিলি ফেনী সদরের লেমুয়া ইউপির নেওয়াজপুর গ্রামের মুছা মিয়ার মেয়ে।

মঙ্গলবার রাতে উপজেলার হেসাখাল ইউপির আনজিয়া পাড়া গ্রামের আমিনুল হকের বাড়িতে ঘটনাটি ঘটে।

বুধবার ভোরবাতে নিহতের দাদার আব্দুল মোনাফের নিকট মেম্বার পরিচয়ে ফোন করে বলে মিলি হাসপাতালে মারা গেছে,এর পর ভোররাতে নিহতের স্বজনরা আসলে তড়িগড়ি করে শিশুর মরদেহ পরিবারকে দিয়ে দেয়,তারা শিশুর মরদেহ গ্রামের বাড়ী ফেনীতে নিয়ে যায়। খোলার পর দেখে শিশুটির শরীরে গলায় বিভিন্ন দাগ দেখে তারা মরদেহ ফেনী সদর থানায় নিয়ে যায়। ফেনী সদর পুলিশের পরামর্শে মরদেহ নাঙ্গলকোট থানায় নিয়ে আসেন।

নিহতের জেঠা হারুনুর রশিদ জানান, তার ভাতিজি মিলি ফেনী খাদিজাতুল কোবরা মাদ্রাসায় আবাসিকে থেকে পড়তো, দুইমাস পূর্বে তার ভাই মুছা কুয়েত থেকে ছুটিতে বাড়ীতে আসলে সৎ মায়ের পরামর্শে মিলিকে লাকসামে একটি মাদ্রাসায় ভর্তি করে। মেয়ের মৃত্যু সংবাদে তার ভাই মুছা কুয়েত থেকে বিকেলে বাড়িতে আসে পাগলের প্রলাপ করতেছে।

এবিষয়ে নাঙ্গলকোট থানার ওসি নজরুল ইসলাম জানান, মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে এবং থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। এ ঘটনায় সৎমাকে আটক করা হয়েছে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ