কে হচ্ছেন কুবির ভিসি?

ডেস্ক রিপোর্টঃ কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) ভিসি অধ্যাপক ড. মো. আলী আশরাফের মেয়াদ শেষ হয়েছে গত ২ ডিসেম্বর। প্রতিষ্ঠার ১২ বছরেও প্রো-ভিসি নিয়োগ দেওয়া সম্ভব হয়নি।

এর ওপর গত ২৫ এপ্রিল থেকে ফাঁকা রয়েছে কোষাধ্যক্ষের পদ। এর ফলে ভিসির অনুপস্থিতিতে কেউই ওই দায়িত্ব পালন করতে পারছেন না। শীর্ষ তিন পদে লোক না থাকায় বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বাভাবিক কার্যক্রমে স্থবিরতা দেখা দিয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার দফতর সূত্রে জানা গেছে, কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় আইনে প্রো-ভিসির কথা বলা হলেও তা এখনও নিয়োগ হয়নি। গত ২৫ এপ্রিল কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক কুন্ডু গোপীদাসের মেয়াদ শেষ হয়।

তবে এরই মধ্যে নতুন ভিসি কে হচ্ছেন, এ নিয়ে জল্পনা শুরু হয়ে গেছে। বেশ কয়েকজন অধ্যাপকের নাম এই পদে শোনা যাচ্ছে। তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্যরা হলেন- বাংলাদেশ পাবলিক সার্ভিস কমিশনের (পিএসসি) সাবেক সদস্য, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণ রসায়ন ও অনুপ্রাণ বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. এমরান কবির চৌধুরী, বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাউবি) প্রো-ভিসি অধ্যাপক ড. খোন্দকার মোকাদ্দেম হোসেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক মমতাজ উদ্দিন আহমেদ, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের লোক প্রশাসন বিভাগের অধ্যাপক এম রুহুল আমিন, ঢাবি শিক্ষক সমিতির বর্তমান সভাপতি অধ্যাপক ড. এএসএম মাকসুদ কামাল প্রমুখ।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, এদের মধ্যে কয়েকজনের নাম ইতোমধ্যেই সংশ্লিষ্ট দফতরে গেছে। এদের মধ্যে অধ্যাপক ড. এমরান কবির চৌধুরী ও অধ্যাপক ড. খোন্দকার মোকাদ্দেম হোসেনের মধ্যে কোনো একজনের ভিসি হওয়ার সম্ভাবনা বেশি।

অধ্যাপক ড. এমরান কবিরের বাড়ি কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে। তার বিরুদ্ধে ৫০ লাখ টাকায় ঢাকা ক্লাবের সদস্যপদ কেনার অভিযোগ রয়েছে। পিএসসির সদস্য থাকাকালে ৩০তম বিসিএস পরীক্ষায় আর্থিক লেনদেনের পরও চাকরি না হওয়ায় ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা তার বাসভবনে ভাংচুর চালায়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার মো. মজিবুর রহমান মজুমদার জানিয়েছেন, অল্প সময়ের মধ্যেই ভিসি নিয়োগ হতে পারে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ