এটিএম শামসুজ্জামান একজন বর্ষীয়ান অভিনেতা। অভিনয় জীবনে তিনি পাঁচ বার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন। শিল্পকলায় অবদানের জন্য ২০১৫ সালে পান রাষ্ট্রীয় সর্বোচ্চ সম্মাননা একুশে পদকও পেয়েছেন। অভিনয়ের পাশাপাশি তিনি একজন প্রযোজক, চিত্রনাট্যকার এবং নির্মাতাও।

এই অভিনেতা ঈদুল ফিতরের মতো এবারের ঈদুল আজহাও হাসপাতালেই কাটিয়েছেন। তিনি গত ২৬ এপ্রিল থেকে হাসপাতালে আছেন। বর্তমানে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে রয়েছেন তিনি।

আজ সোমবার (১৯ আগস্ট) দুপুরে এটিএম শামসুজ্জামানের বর্তমান অবস্থা জানিয়েছেন তারই মেজো মেয়ে কোয়েল গণমাধ্যমকে বলেন, ‘বাবা এখন অনেক ভালো আছেন। ঈদুল আযহার ঈদে আগে একটা অপারেশন হয়েছিলো সেটা সফল হয়েছে। ঈদের আগের দিন আইসিইউ থেকে উনাকে কেবিনে দেওয়া হয়েছে। এখন সেখানেই আছেন।’

>>আরো পড়ুনঃ  কপাল পুড়ল শোভন - রাব্বানির

তিনি বলেন, ‘কোরআন-হাদিসের বই, রবীন্দ্রনাথ, নজরুল বিভিন্ন ধরণের সাহিত্যের বই পড়েন তিনি। বিক্রম শেঠ’র বই পড়েন। বিশেষ করে বিক্রম শেঠ এর ‘সৎপাত্র’ বাবার অনেক পছন্দের। আমিও মাঝে মধ্যে বই নিয়ে যাই বাবার জন্য। সবাই বাবার জন্য দোয়া করবেন, উনি যেনো সুস্থ থাকেন ভালো থাকেন।’

প্রসঙ্গত, ১৩ মে আনুষ্ঠানিকভাবে এটিএম শামসুজ্জামানের চিকিৎসার সব ধরনের দায়িত্ব নেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এই অভিনেতার চিকিৎসার জন্য প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে ১০ লাখ টাকার চেক হাসপাতালের তহবিলে জমা দেওয়া হয়েছে। নিয়মিত এটিএম শামসুজ্জামানের খোঁজ খবরও রাখেন প্রধানমন্ত্রী।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ