চান্দিনায় ডা. প্রাণ গোপালের বিশাল নির্বাচনী শো-ডাউন (ভিডিও)

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ চান্দিনায় পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচি অনুযায়ী উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় শুক্রবার (২০ অক্টোবর) সকাল থেকে বিভিন্ন মন্দির পরিদর্শন করেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি, প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত চিকিৎসক প্রফেসর ডা. প্রাণ গোপাল দত্ত। নেতাকর্মী ও সমর্থকদের সরব উপস্থিতিতে তার মন্দির পরিদর্শন কর্মসূচি রাজনৈতিক শো-ডাউনে পরিণত হয়। দুপুরে চান্দিনার কুটুম্বপুর বাজারে তিনি আওয়ামীলীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে বলেন- ‘আওয়ামীলীগ এর সভানেত্রী মাদার অব হিউম্যানিটি জননেত্রী শেখ হাসিনা আগামী নির্বাচনে কাকে নৌকা প্রতীক দিবেন সেই সিদ্ধান্ত নেবেন। তিনি যাকে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন দিবেন আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধ হয়ে তাকে বিজয়ী করতে কাজ করবো।’
জানা যায়, সকাল ৬টা থেকেই ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে ইলিয়টগঞ্জ বাজার এলাকায় মোটরসাইকেল, প্রাইভেটকার, মাইক্রোবাস, পিকাপ নিয়ে জড়ো হতে থাকে তার সমর্থকরা। সকাল সাড়ে ৭টায় মহাসড়ক দিয়ে চান্দিনা উপজেলা সদর হয়ে চান্দিনা রাজকালী বাড়ী মন্দিরে পৌঁছান তিনি। এসময় তার গাড়ি বহরে দুই শতাধিক গাড়ি এবং শতাধিক মোটরসাইকেলে নেতাকর্মীরা তার সফর সঙ্গী হন। রাজকালী বাড়ী মন্দির পরিদর্শন ও প্রার্থনা শেষে উপজেলার রামমোহন সড়ক দিয়ে প্রত্যন্ত অঞ্চলের দিকে রওয়ানা হন তিনি। এসময় উৎসুক জনতা সড়কের দুপাশে দাঁড়িয়ে তাকে অভিনন্দন জানান। এসময় প্রফেসর ডা. প্রাণ গোপাল দত্ত বৃষ্টির মধ্যেও গাড়িতে দাঁড়িয়ে অভিবাদনের জবাব দেন।
প্রচন্ড ঝড়-বৃষ্টি আর বৈরী আবহাওয়া উপেক্ষা করে তার সমর্থকরা তাকে নিয়ে উপজেলার পানিপাড়া নতুন বাংলা বাজার, ভোমরকান্দি, কাদুটী, ফতেহপুর, নবাবপুর, কালিয়ারচর, পরচঙ্গা, অম্বরপুর, মুরাদপুর বাজার হয়ে কুটুম্বপুর পর্যন্ত বিস্তির্ণ এলাকায় সড়ক পথে ঘুরে বেড়ান।
এদিকে শুক্রবার চান্দিনায় আইন-শৃঙ্খলা অবনতির আশঙ্কা করে বিভিন্ন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ এর পক্ষ থেকে কুমিল্লা জেলা প্রশাসক বরাবর অভিযোগ করা হয়েছিল। কিন্তু কোন প্রকার অপ্রীতিকর ঘটনা ছাড়াই একই দিনে চান্দিনা উপজেলা আওয়ামীলীগ এর বর্ধিত সভা ও কুমিল্লা উত্তর জেলা আওয়ামীলীগ সহ-সভাপতি স্বাধীনতা পদক প্রাপ্ত প্রফেসর ডা. প্রাণ গোপাল দত্তের মন্দির পরিদর্শন পৃথক পৃথক ভাবে শেষ হয়।
সরেজমিনে দেখা যায়, আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে উপজেলার প্রতিটি বাজার ও গুরুত্বপূর্ণ এলাকায় পুলিশসহ প্রশাসনের সদস্যরা সক্রিয় ভূমিকা পালন করে। দুপুর ৩টায় ডা. প্রাণ গোপাল দত্ত ঢাকার উদ্দেশ্যে রওয়ানা হন।
এসময় তার সাথে ছিলেন- বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের সাবেক উপ-পরিচালক বীরমুক্তিযোদ্ধা আবদুল মমিন সরকার, কুমিল্লা জেলা পরিষদ সদস্য মো. জাহাঙ্গীর আলম, যুবলীগ এর কেন্দ্রীয় নেতা মো. মজিবুর রহমান, মাইজখার ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ এর সাবেক সভাপতি মো. শাহ্ সেলিম প্রধান, কুমিল্লা জজ কোর্টের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনালের সহকারী পিপি এ্যাডভোকেট শাহজালাল মিঞা শিপন, উপজেলা যুবলীগ এর সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো. জাহাঙ্গীর আলম, যুবলীগ নেতা মো. দুলাল হোসেন, চান্দিনা পৌর যুবলীগ সভাপতি আলহাজ্ব মো. মনির খন্দকার, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা মো. লিটন সরকার, সাবেক চেয়ারম্যান শামসুল আলম, এ.কে.এম রুহুল আমিন ভূইয়া, চান্দিনা উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি মো. মহিউদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক মো. আবু কাউছার, সাংগঠনিক সম্পাদক সামিরুল খন্দকার রবি, যুবলীগ নেতা মো. শাহজাহান প্রমুখ।