ডিবি পুলিশ পরিচয়ে দেবিদ্বারের এক ব্যবসায়ীর ট্রাকসহ ২১ গরু ছিনতাই

দেবিদ্বার প্রতিনিধিঃ ডিবি পুলিশ পরিচয়ে দেবিদ্বারের এক ব্যবসায়ীর ট্রাকসহ (ঢাকা মেট্ট্রো-ট ১৪-১১৮৬) ২১ টি গরু (বাছুর বলদ) যার মূল্য গরুর মূল্য ১২ লক্ষ টাকা এবং ৫টি মোবাইল হ্যান্ডসেটসহ নগদ দেড় লক্ষ টাকা ছিনতাইয়ের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় ট্রাকের ড্রাইভার মো. রিপন ও গরুর মালিক মো.ইব্রাহীম খলিল ভূইয়া নারায়নগঞ্জ জেলার রুপগঞ্জ থানায় একটি মামলা (ধারা ১৭০/৩৪১/৩২৩/৩২৮/৩৭৯৩৪) দায়ের করেন। ব্যবসায়ী মো.ইব্রাহীম খলিল ভূইয়া (৩২) দেবিদ্বার উপজেলার রাধানগর গ্রামের মৃত সৈয়দুর রহমানের পুত্র এবং চালক মো. রিপন রাজশাহীর মতিহার থানার শ্যামপুর (পশ্চিমপাড়া) গ্রামের মো. আকবরের পুত্র।

মামলার বিবরণে জানা গেছে, গত ৪ ডিসেম্বর সোমবার ভোর চারটার দিকে রাজশাহী সিটি গরু বাজার থেকে ১৮ টি লাল রংয়ের বাছুর, ৫টি সাদা রংয়ের বলদ ক্রয় করে ভাড়ায় ট্রাকে কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার রাধানগর গ্রামে আসছিলেন, পথে নারায়নগঞ্জ জেলার রুপগঞ্জের কর্নপোপ সাকিনস্থ ইউএস বাংলা মেডিক্যাল হাসপাতালের নিকট পৌছা মাত্র নম্বর ছাড়া একটি সাদা রংয়ের নোয়া মাইক্রোবাস গরু বোঝাই ট্রাকের গতিরোধ করে। পরে ওই মাইক্রোবাস থেকে আটজন ডিবি পুলিশ পরিচয় দিয়ে গাড়ির কাগজপত্র দেখাইতে বলে। দেখানোর এক পর্যায়ে ট্রাকে থাকা ব্যবসায়ী মো. ইব্রাহীম খলিল ও তার শশুর সহিদুর রহমান ভূইয়া, ভগ্নিপতি রমিজ উদ্দিন সরকার, চালক রিপন, হেল্পপার নান্নু ও কর্মচারী খলিলুর রহমানকে টেনে হেচরে তাদের নোয়া গাড়িতে তুলে মারধর করে নেশা জাতীয় দ্রব্য সেবন করিয়ে অজ্ঞান করে চনপাড়া এলাকায় ফেলে রেখে গরু বোঝাই ট্রাক নিয়ে পালিয়ে যায়।

পরে স্থানীয়দের সহযোগিতায় জ্ঞান ফিরে পায়। এ ব্যাপারে রুপগঞ্জ থানার (তদন্ত কর্মকর্তা) মো. তারেকুজ্জামান’র সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, তেজগাও শিল্প এলাকা থেকে ছিনতাইকৃত ট্রাকটি উদ্ধার করা হয়েছে, গরু উদ্ধারের চেষ্টা চলছে তবে এখনও কাউকে গ্রেপ্তার করা সম্ভব হয়নি।