নিজস্ব প্রতিবেদকঃ কুমিল্লা মহানগরীর স্বনামধন্য শিশু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান মনোহরপুর আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা শুধু একাডেমিক কার্যক্রমেই নয়,সাংস্কৃতিক কার্যক্রমেও কৃতিত্বের স্বাক্ষর রেখে চলেছে। এবার এই বিদ্যালয়ের ক্ষুদে শিক্ষার্থীরা শিশুদের মৌসুমি প্রতিযোগীতা ২০১৭ এর দলীয় নৃত্যে (আঞ্চলিক) চট্রগ্রাম বিভাগে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করেছে। আদর্শ সদর উপজেলা ও কুমিল্লা জেলার পর গতকাল রবিবার চট্রগ্রাম বিভাগীয় পর্যায়ে গৌরবময় সাফল্যের খবর শুনে উল্লাসিত বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও অভিভাবকবৃন্দ। আগামী ২৫ অক্টোবর ঢাকা শিশু একাডেমিতে জাতীয় পর্যায়ে চুড়ান্ত প্রতিযোগীতায় অংশ নিতে প্রস্তুতি নিচ্ছে। মনোহরপুর আদর্শ সরকারি স্কুল পরিবার এখন দেশ সেরা হওয়ার প্রতীক্ষার প্রহর গুনছেন।
মনোহরপুর আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক প্রতিনিধি রেখা দত্ত ও সহকারি শিক্ষক মাহফুজা আক্তার জানান, রবিবার সকালে চট্রগ্রাম শিশু একাডেমিতে শিশুদের মৌসুমি প্রতিযোগীতা ২০১৭ এর বিভাগীয় পর্যায়ে চুড়ান্ত প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত হয়। এতে দলীয় নৃত্যে (আঞ্চলিক) চট্রগ্রাম বিভাগে প্রথম হওয়ার গৌরব অর্জন করেছে মনোহরপুর আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। প্রতিযোগীতায় বিজয়ী শিক্ষার্থীরা হচ্ছে মিলি রানী ভৌমিক,মেহেরিন মুনতাহা,অধরা ভৌমিক,দেবলিনা পাল দিবা।
বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির কেন্দ্রিয় সভাপতি সালেহা আক্তার বলেন, আমরা মনে প্রাণে বিশ্বাস করি শিশুরা যদি সাংস্কৃতিক চর্চার মধ্যে দিয়ে বেড়ে উঠে তাহলে তাদের মধ্যে সৃজনশীল মনোভাব গড়ে উঠবে। সাংস্কৃতির চর্চার ধারাবাহিকতা থাকলে শিশুরা মানবিক গুণাবলী সমৃদ্ধ আদর্শ মানুষ হিসেবে বিকশিত হয়ে উঠবে। তাই আমরা বিদ্যালয়ে একাডেমিক কার্যক্রমের পাশাপাশি ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক কার্যক্রমকে প্রাধান্য দিয়ে আসছি। আমাদের শিক্ষার্থীরা বিভাগীয় পর্যায়ে চ্যাম্পিয়ন খ্যাতি অর্জনের মধ্যে দিয়ে একদিকে যেমন কর্মকান্ডের স্বীকৃতি পেয়েছে অপরদিকে এ সাফল্য পুরো কুমিল্লা জেলাবাসীর জন্য গৌবর বয়ে এনেছে। আগামী ২৫ অক্টোবর ঢাকা শিশু একাডেমিতে জাতীয় পর্যায়ে চুড়ান্ত প্রতিযোগীতায় আমাদের শিক্ষার্থীরা অংশ নিবে। আমরা সকলের নিকট দোয়া চাচ্ছি।
এ প্রসঙ্গে প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মো.নুরুল ইসলাম বলেন, যে শিশু জ্ঞান ও সংস্কৃতির চর্চা করে তাকে কখনো অসুন্দর আক্রান্ত করতে পারে না। বর্তমান সমাজের প্রেক্ষাপটে সমাজে শিশুদের ইতিবাচক পরিবর্তনে সংস্কৃতি চর্চা অনেক বেশি দরকার। মনোহরপুর আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিশু শিক্ষার্থীদের সাফল্য শিক্ষা-সংস্কৃতির পাদপীঠ কুমিল্লার ঐতিহ্যকে আরো সমৃদ্ধ করবে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ