কুমিল্লা নাঙ্গলকোটে পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের উপর সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে বসত ঘর,টয়লেট, খড়ের ছিন ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার বটতলী ইউনিয়নের কাশিপুর পূর্ব পাড়া গ্রামে টুকন আলীর ছেলে আব্দুল গফুর ও আবু বক্কর পরিবারের মধ্যে জায়গা জমি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। গতকাল আবু বক্কর তার বাড়ীর সীমানায় একটি ছোট কাঠাল গাছ কাটতে গেলে আশ্বাদ আলীর ছেলে আজগর আলীর নির্দেশে, আব্দুল গফুর (৫৫), আব্দুল গফুরের ছেলে খোরশেদ আলম (২৫), ইন্তু মিয়ায় ছেলে আহছান উল্লাহ (৪০), সিদ্দিক মিয়ার ছেলে জসিম উদ্দিন (৪০)সহ ৬/৭ জন আবু বক্করের উপর হামলা চালায়।

এসময় হামলাকারীরা বসতঘরের এক আংশ,টয়লেট, খড়ের চিন, ভাংচুর করে। এতে বাধা দিলে দেশীয় অস্র সস্ল নিয়ে হামলা চালিয়ে পারুল বেগম (৫৫), কলি বেগম (৩৮) কুলসুম বেগমকে (৩৫) মারাত্মক আহত করে। তাদের চিৎকার শুনে আসে পাশের লোকজন এগিয়ে এসে আহতদের উদ্ধার করে নাঙ্গলকোট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে পারুল বেগমকে ভর্তি করা হয় ও অন্যদেরকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়। অভিযুক্ত আব্দুল গফুর বলেন- তার জায়গার কাঠাল গাছটি কাটতে যায় আবু বক্কর । আমি বাধা দিয়ে তাদেরকে সড়িয়ে দিই। এব্যাপারে

সোমবার নাঙ্গলকোট থানার ওসি মো :বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী বলেন-অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: