ভারতীয় সমর্থকরা প্রায় নিশ্চিত ছিলেন যে ফাইনাল খেলবে ধনী-কোহলিরা। কিন্তু তা আর হলো না। সেমিফাইনাল থেকেই বিদায় নিতে হলো ভারতকে। এমতাবস্থায় কোহলি, ধোনিদের দেশে ফেরার ফ্লাইট-এর টিকিট কাটা হয়েছিল বিশ্বকাপ ফাইনালের পর। কারণ তাদের ফাইনাল না খেলার কোন কারণ ছিলো না।

এদিকে ১৪ জুলাই ফাইনাল খেলবে নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ড। এবার নতুন বিশ্বচ্যাম্পিয়ন পেতে চলেছেন সমর্থকরা। আর ১৪ জুলাই বিশ্বকাপ ফাইনাল পর্যন্ত ভারতীয় দলকে ইংল্যান্ডে থাকতে হবে। কারণ, তার আগে দলের জন্য ফ্লাইট-এর টিকিট জোগাড় করা যায়নি।

এমনিতেই সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের কাছে হারের পর মন খারাপ ভারতীয় ক্রিকেটারদের। বিশ্বকাপের আবহ থেকে বেরিয়ে আসতে পারলে তারা হয়তো নতুন করে নিজেদের উজ্জীবিত করতে পারতেন! কিন্তু সেটা আর হচ্ছে না। ইচ্ছায় থাকুক বা না থাকুক আরও তিনদিন কোহলি, ধোনিদের ইংল্যান্ডে বিশ্বকাপের আবহে থাকতে হবে।

বিসিসিআই এর এক কর্তা বলেছেন, ১৪ জুলাই পর্যন্ত ভারতীয় দলের সবাইকে ম্যাঞ্চেস্টারে থাকতে হবে। লজিস্টিকাল ইস্যুর জন্য আমাদের টিকিট বুকিংয়ে সমস্যায় পড়তে হয়েছে। সেমিফাইনাল শেষ হওয়ার পরই আমরা টিকিট বুকিংয়ের জন্য চেষ্টা শুরু করেছিলাম। কিন্তু কাজ হয়নি।