আশিকুর রহমানঃ কুমিল্লার ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলার পূর্ব পোমকাড়া গ্রামে জমির পানিতে মাছ ধরতে গিয়ে জসিম উদ্দিন সরকার (৩০) নামের এক যুবকের রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে শোরতহাল প্রতিবেদন তৈরী শেষে ময়না তদন্তের জন্য লাশ মর্গে প্রেরণ করেছে।

এই ব্যাপারে নিহতের স্ত্রী সুমি আক্তার জানান, নিহত জসিম উদ্দিন গত ১৬ জুলাই মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭ টায় জাল নিয়ে মাছ ধরতে ঝাল নিয়ে ঘর থেকে বের হয়ে যায়। পরে সে আর ঐ দিন রাতে ফিরে আসেনি। পরদিন ১৭ জুলাই বুধবার সকালে আমরা বিভিন্ন দিখে খোজা খুজি করতে গিয়ে দেখি সে আমাদের বসত বাড়ীর থেকে ৩শ গজ পূর্বদিকে জমির পানিতে ভেসে আছে। পরে আমরা ঐখান থেকে তাকে তুলে আনি এবং থানায় খবর দেই। খবর পেয়ে থানা পুলিশের এস আই যুযুৎসু যশ চাকমা সঙ্গীয় ফোর্স সহ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে শোরতহাল রিপোর্ট তৈরী শেষে নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ (কুমেক) হাসপাতলে প্রেরণ করেন।

>>আরো পড়ুনঃ  কুমিল্লায় ৯৯৯ কল দেওয়ায় বাস যাত্রীকে রড দিয়ে হামলা

এই ব্যাপারে তদন্তকারী কর্মকর্তা এস আই যুযুৎসু যশ চাকমা বলেন, খবর পেয়ে আমরা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করেছি। নিহত জসিম উদ্দিন সরকারের শরীলে তেমন কোন আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। তবে তার এক হাতে দুটি সাপে কামড়ের মত ছোট ছোট ক্ষত চিহ্ন দেখা গেছে। এতে আমারা প্রাথমিক ভাবে ধারনা করছি তাকে সাপে কামড় দিয়েছে এবং সে তৎক্ষণিক ভাবে বুঝতে পারেনি। এক পর্যায়ে তার পুরো শরীলে বিষ ছড়িয়ে সে ঘটনাস্থলে মারা গেছে। ময়না তদন্ত হাতে পেলে এর প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে। এই ব্যাপারে নিহতের ভাই খোরশেদ আলম সরকার বাদী হয়ে থানায় একটি অভিযোগ দাখিল করেছে। তাদের ধারনা কে বা কাহারা রাতের আধারে হামলা করে জসিমকে মেরেছে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: