মাহফুজুর রহমানঃ আগামী ৪৮ ঘন্টার মধ্যে খায়রুল আলম সাধনের খুনি’দের সনাক্ত করে গ্রে’ফতার করা না হলে ঢাকা-চট্টগ্রাম ও সিলেট-কুমিল্লা মহাসড়কে অবস্থান নিতে নেতাকর্মীদের নির্দেশ দেন বাঙ্গরা বাজার থানা আওয়ামীলীগ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতারা।

বুধবার সকালে কুমিল্লা জেলা পরিষদের সদস্য ও মুরাদনগর উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক খায়রুল আলম সাধনের হ’ত্যার বিচারের দাবিতে বাঙ্গরা বাজার থানা এলাকার কোম্পানীগঞ্জ-নবীনগর সড়কটি প্রায় ৩ ঘন্টা অবরোধ করে রাখে নেতাকর্মীরা।

এ সময় উপস্থিত নেতাকর্মীরা আরো বলেন, বাংলাদেশ পুলিশ ফেনীর নুসরাত, বুয়েটের আবরার হ’ত্যা ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীর ধর্ষনের ঘটনায় যে ভুমিকা নিয়ে দ্রুত অপরাধীদের গ্রেফ’তার করে আইনের আওতায় আনা হয়েছে। ঠিক সেই ভাবে খায়রুল আলম সাধনের হ’ত্যার রহস্য উদঘাটন করে দ্রুত খু’নিদের আইনের আওতায় আনা হোক। অন্যথায় যতক্ষণ পর্যন্ত খু’নিদের গ্রেফ’তার করা না হবে, ততক্ষণ পর্যন্ত মহাসড়ক অব’রোধ করে রাখার ঘোষনা দেয়া হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, সাবেক উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মোঃ রুহুল আমিন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আরিফুল ইসলাম সাহেদ, বাঙ্গরা বাজার থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি তৌফিক ছিদ্দিকী, যুবলীগের আহ্বায়ক নাইম খান, যুন্ম আহবায়ক আবদুল্লা নজরুল, ইউপি চেয়ারম্যান শরিফুরল ইসলাম, ওমর ফারুক, জাকির হোসেন, কাইয়ুম ভূইয়া, রুহুল আমিন, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের আহবায়ক রহিম পারভেজ, সদস্য সচিব সেলিম সরকার, যুগ্ম আহবায়ক সোহরাব হোসেন বেলাল, ইঞ্জিনিয়ার মনির খাঁন, উত্তর জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি জহিরুল ইসলাম জুয়েল, উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক ফয়সাল আহম্মেদ নাহিদ, যুগ্ম আহবায়ক সফিক তুহিন, বাঙ্গরা বাজার থানা ছাত্রলীগের আহবায়ক আবুল কালাম, উপজেলা কৃষকলীগের আহবায়ক কামাল উদ্দিন খন্দকার, বাঙ্গরা বাজার কৃষকলীগের আহবায়ক আবু মুছা আল কবির, যুবলীগের সদস্য শাহিন ভূইয়া, বিল্লাল হোসেন, আব্দুল বাতেন, মহসিন সরকার, সাগর সরকারসহ আওয়ামীলীগ ও সহযোগী অংঙ্গ সংগঠনের সকল নেতৃবৃন্দ।

উল্লেখ্য, গত ৯ জানুয়ারী বৃহস্পতিবার সকালে ঢাকার বনশ্রীর নিজ বাসা থেকে এলাকায় আসার পথে কুমিল্লা জেলা পরিষদের সদস্য ও মুরাদনগর উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক খায়রুল আলম সাধনকে অপ’রহরণ করা হয়। পরে দুপুরে ঢাকা-চট্রগ্রাম মহাসড়কের সদর দক্ষিণ উপজেলার মোস্তফাপুর এলাকা থেকে তার ম’রদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।