কুমিল্লায় বিএনপি-আ.লীগের মধ্যে উত্তেজনা

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার কক্সবাজার সফর কর্মসূচিকে কেন্দ্র করে কুমিল্লায় উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছে। এরই মধ্যে স্থানীয় আওয়ামী পাল্টা কর্মসূচি দিয়েছে বলে জানা যাচ্ছে।

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে জেলার ৮টি উপজেলার দলীয় নেতাকর্মীরা দলের নেত্রীকে অভ্যর্থনা জানাতে ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে। নিজ নিজ উপজেলা এলাকায় দলীয় নেতাকর্মীরা সমবতে হয়ে দলের চেয়ারপারসন ও কেন্দ্রীয় নেতাদের স্বাগত জানাতে এরই মধ্যে সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে।

অপর দিকে পাল্টা কর্মসূচি হিসেবে জেলার প্রবেশ মুখ দাউদকান্দিতে স্থানীয় আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগ উপজেলার ১০-১২টি পয়েন্টে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করার ঘোষণা দিয়েছে। এতে সংঘর্ষের আশঙ্কায় এবং মহাসড়কে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক রাখতে প্রশাসন থেকে ব্যাপক নিরাপত্তা জোরদার করা হচ্ছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

জানা যায়, শনিবার সড়ক পথে বেগম খালদা জিয়া দলের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দকে নিয়ে কক্সবাজার যাওয়ার পথে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক দিয়ে জেলার দাউদকান্দি, চান্দিনা, মুরাদনগর, দেবিদ্বার, বুড়িচং, আদর্শ সদর, সদর দক্ষিণ ও চৌদ্দগ্রাম উপজেলা অতিক্রম করবেন।

এসময় এসব উপজেলার দলীয় নেতাকর্মী ছাড়াও আশ-পাশের উপজেলা থেকে নেতাকর্মীরা মহাসড়কের বিভিন্ন এবং সংশ্লিষ্ট উপজেলা বিএনপি ও এর অঙ্গ সংগঠনের উদ্যোগে প্রস্তুতি সভা করা হয়েছে।

দলীয় সিদ্ধান্ত অনুসারে কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মনিরুল হক সাক্কুর নেতৃত্বে দলীয় নেতাকর্মীরা অবস্থান নেবেন মহাসড়কের পদুয়ার বাজার রেলওয়ে ওভারপাস এলাকায়। অপর দিকে দক্ষিণ জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক হাজী আমিন উর রশিদ ইয়াসিনের পক্ষে নেতাকর্মীরা মহাসড়কের আলেখারচর বিশ্বরোড থেকে কোটবাড়ি মোড় পর্যন্ত মহাসড়কে অবস্থান নেয়ার কথা রয়েছে।

এছাড়াও দাউদকান্দিতে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনের পক্ষে, ইলিয়েটগঞ্জ এলাকায় বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ও সাবেক সাংসদ কাজী মোফাজ্জাল হোসাইন কায়কোবাদের পক্ষে, চান্দিনায় জেলা বিএনপির সভাপতি খোরশেদ আলমের নেতৃত্বে, দেবিদ্বারের সাবেক এমপি ইঞ্জিনিয়ার মঞ্জুরুল আহসান মুন্সীর পক্ষে মহাসড়কের দেবিদ্বারের বরাট, বাগুর, হারিখোলা মেইল গেইট, আতাপুর, বুড়িচংয়ের নিমসারে কেন্দ্রীয় বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদের পক্ষে, পদুয়ারবাজার বিশ্বরোড থেকে সুয়াগাজী পর্যন্ত বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা ও সাবেক সাংসদ আলহাজ মনিরুল হক চৌধুরীর পক্ষে এবং চৌদ্দগ্রামে বিএনপি নেতা কামরুল হুদার পক্ষে দলীয় নেতাকর্মীরা অবস্থান নিয়ে শোডাউন করবে বলে দলীয় সূত্রে জানা গেছে।

এদিকে দাউদকান্দি উপজেলার টোলপ্লাজা, গৌরীপুর, ইলিয়টগঞ্জ, রায়পুর, ঝিংলাতলী, হাসানপুর, বারপাড়া, পেন্নাই, আমিরাবাদ, বিশ্বরোডসহ আরও কয়েকটি পয়েন্টে বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে মানববন্ধনের কর্মসূচি দিয়েছে দাউদকান্দি উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগ।

এ নিয়ে উভয় দলে সংঘর্ষের আশঙ্কায় আতঙ্ক বিরাজ করছে। এবিষয়ে দাউদকান্দি উপজেলা চেয়ারম্যান মেজর (অব.) মোহাম্মদ আলী জানান, আমরা দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালন করবো। কর্মসূচিতে কোনো নেতিবাচক কাজ না করতে নেতাকর্মীদের নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

দাউদকান্দি উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আবুল হাসেম চেয়ারম্যান জানান, আমরা শান্তিপূর্ণভাবে নেত্রীকে স্বাগত জানাবো। আওয়ামী লীগ এসময় কি কর্মসূচি পালন করবে তারাই বলতে পারবে।

     আরো পড়ুন....

পুরাতন খবরঃ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১  

ফেসবুকে আমরাঃ