করোনা আক্রান্ত বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার উন্নত চিকিৎসার জন্য সরকারের কাছে আবেদন করা হয়েছে। পরিবারের পক্ষ থেকে এই আবেদন করা হয় বলে বিএনপি চেয়ারপারসনের কার্যালয়ের সংশ্লিষ্ট সূত্র নিশ্চিত করেছে। এদিকে সোমবার (৩ মে) সন্ধ্যায় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য পরিস্থিতি নিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান কামালকে ফোন করেছেন বলে বিএনপি সূত্রগুলো থেকে নিশ্চিত করেছে। মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বিষয়টি একটি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন।

রাজধানীর এভারকেয়ার হসপিটাল চিকিৎসা নিচ্ছেন খালেদা জিয়া। সোমবার (৩ মে) ভোরের দিকে বেগম জিয়া হালকা শ্বাসকষ্ট অনুভব করেন। এরপর ডাক্তাররা তাকে দেখে সিসিইউতে (করোনারি কেয়ার ইউনিট) স্থানান্তর করেন।

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার শ্বাস-প্রশ্বাস স্বাভাবিক বলে জানিয়েছেন তার চিকিৎসায় গঠিত মেডিকেল বোর্ডের সদস্য ডা. জাহিদ হোসেন। আজ সোমবার (৩ মে) সন্ধ্যার পর তিনি সাংবাদিকদের এ কথা জানান।

তিনি বলেন, আজ ভোরের দিকে বেগম জিয়া হালকা শ্বাসকষ্ট অনুভব করেন। এরপর ডাক্তাররা তাকে দেখে সিসিইউতে (করোনারি কেয়ার ইউনিট) স্থানান্তর করেন। আমি এখন ম্যাডামের সঙ্গে কথা বলে এসেছি। তিনি স্বাভাবিকভাবে শ্বাস-প্রশ্বাস নিচ্ছেন।

সোমবার বিকেলে খালেদা জিয়াকে রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালের নন-করোনা ইউনিট থেকে সিসিইউতে স্থানান্তর করা হয়।

ডা. জাহিদ বলেন, ম্যাডামকে সিসিইউতে নেওয়া হয়েছে। তিনি সেখানে চিকিৎসাধীন আছেন। আপাতত আপনারা এটুকুই জানুন। পরে বিস্তারিত জানানো হবে। এ বিষয়ে বিএনপির চেয়ারপারসনের মিডিয়া উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান বলেন, বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে খালেদা জিয়ার হালকা শ্বাসকষ্ট দেখা দিলে তাকে কেবিন থেকে সিসিইউতে স্থানান্তর করা হয়। বর্তমানে ডা. শাহাবুদ্দিন তালুকদারের তত্ত্বাবধানে তার চিকিৎসা চলছে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: