চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে খাওয়ালেন ২৭ হাজার মানুষকে

ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হয়ে ১০টি গরু জবাই করে ইউনিয়নের ২৭ হাজার মানুষকে খাওয়ানোর ঘটনা ঘটেছে। এ বিষয় নিয়ে আলোচনা চলছে ইউনিয়ন জুড়ে। ঢাকার ধামরাইয়ে সোমভাগ ইউনিয়নে এমন এক ঘটনা ঘটেছে। ইউনিয়ন পরিষদে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে প্রভাষক মোহাম্মদ আওলাদ হোসেন এক গণভোজের আয়োজন করেন। শনিবার (১ জানুয়ারি) দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত ধামরাইয়ের দেপশাই স্কুলমাঠে এ গণভোজের চলেছে।

জানা যায়, ধামরাইয়ের ইতিহাসে এটাই প্রথম একজন ইউনিয়ন চেয়ারম্যান তার পুরো ইউনিয়নবাসী ও সমর্থকদের গণভোজের জন্য ২৫০ ডেকেরও বেশি বিরিয়ানির আয়োজন করেছে। এই রান্না করেছেন নারী-পুরুষ মিলে ৯০ জন বাবুর্চি। যা প্রায় ২৭ হাজার মানুষকে খাওয়ানো হয়েছে। শুধু তাই নয় দূর দূরান্তের মানুষের জন্য পরিবহন ভাড়া করেও দেওয়া হয়েছে৷

গণভোজ অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন ধামরাই ২০ আসনের এমপি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব বেনজীর আহমেদ। তিনি বলেন, ইতোপূর্বে অনেকেই চেয়ারম্যান হয়েছে। এখানে অনেক চেয়ারম্যানই উপস্থিতও আছে। এমন গণসংযোগ বা গণভোজ আগে কখনো হয়নি। ধামরাইয়ের ইতিহাসে এটাই প্রথম।

এ বিষয়ে আয়োজক সোমভাগ ইউনিয়নের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান প্রভাষক মোহাম্মদ আওলাদ হোসেন বলেন, গত ১১ নভেম্বর ধামরাই উপজেলা ইউপি নির্বাচনে সোমভাগ ইউনিয়নের জনগণ আমাকে বিপুল ভোটে বিজয়ী করছেন। আমার জন্য অনেকই হুমকি-ধামকি ও মারও খেয়েছেন। আমাকে ভালোবেসে ভোট দিয়েছেন তারা। আমার ইউনিয়নবাসী আমার কাছে আজকের এই আয়োজনটা প্রাপ্য ছিল। এই আয়োজন তাই কম হইয়ে গেছে। আমি কাজে বিশ্বাসী। ইউনিয়নের উন্নয়ন করতে চাই। আমার উন্নয়নের কথা যেন কয়েক প্রজন্ম পর্যন্ত পৌঁছে যায়।

     আরো পড়ুন....

পুরাতন খবরঃ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১  

ফেসবুকে আমরাঃ