গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে মদ খেয়ে অসুস্থ্য হয়ে মেহেদী হাসান সোহাগ (৩২) ও তৈফিকুজ্জামান সৈকত (৩৩) সহ দুই যুবকের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া গুরুতর অসুস্থ্য ৫ জনকে বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে। এলাকাবাসী জানায় গোবিন্দগঞ্জ পৌর শহরের চক গোবিন্দ পাঠান পাড়ার মেহেদী হাসান সোহাগ,চক গোবিন্দ ঝিল পাড়ার তৌফিকুজ্জামান সৈকত ,চক পশ্চিম চৌমাথা এলাকার রানা, বাধন সরকার, বাপ্পি, ও অভি সহ আরও কয়েকজন যুবক বৃহস্পতিবার রাতে এক সাথে বসে অ্যালকোহল জাতীয় পানি ( মদ) পান করেন। মদ পানের ২ ঘন্টা পর তারা অসুস্থ হয়ে পরেন ।

এর মধ্যে প্রথমে তৌহিদুজ্জামানকে স্থানীয় স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নেয়া হলে সেখানে রাত ১০ দিকে তিনি মারা যান। এর পর শুক্রবার (২৩ জুলাই) সকাল ১১ টার দিকে বগুড়ায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায় মেহেদী হাসান সোহাগ। বাকি অসুস্থ্যদের বগুড়া জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ,রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে।

গোবিন্দগঞ্জ স্বাস্থ্য কেন্দ্রের চিকিৎসক ডা: শরিফুল ইসলাম জানান, সোহাগ, সৈকত ও রানা নামে তিন যুবককে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিলো। এ্যালকাহল জাতিয় কিছু পান করার ফলে তারা অসুস্থ্য হয়ে পড়েন। এখানে অবস্থার অবনতি হলে তাদের রংপুর ও বগুড়ায় স্থানান্তর করা হয়েছে। গোবিন্দগঞ্জ থানার ওসি মেহেদী হাসান জানান, এ ব্যাপারে গোবিন্দগঞ্জ থানায় ইউডি মামলা হয়েছে। ইউডি মামলা সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: