জেলা প্রশাসন ও স্বাস্থ্য বিভাগের সাথে সোমবার সকালে জরুরী বৈঠক করেছেন কুমিল্লা সদর আসনের সংসদ সদস্য ও কুমিল্লা মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি আ ক ম বাহাউদ্দিন বাহার। কুমিল্লা জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে জরুরী বৈঠকে মেডিকেল কলেজে দ্রুত আইসিইউ ইউনিট তৈরি এবং চালু করা ও করোনার চিকিৎসার জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজকে প্রস্তুতের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

৫০০ শয্যাবিশিষ্ট কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালেই জেলার ১৭ উপজেলার করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। কুমিল্লা জেলা প্রশসকের কক্ষে রূদ্ধদার বৈঠক শেষে উপস্থিত সাংবাদিকদের সিদ্ধান্ত নিয়ে ব্রিফিং করেন সংসদ সদস্য আ ক ম বাহাউদ্দিন বাহার।

তিনি বলেন, আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি দ্রুত কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আইসিইউ চালু করা হবে, তিনি জানান, এর জন্য স্থানীয় সরকার মন্ত্রী তাজুল ইসলাম অর্থ বরাদ্দ দিয়েছেন আমরা এ অর্থ দ্রুত কাজে লাগিয়ে আইসিইউ তৈরি ও কুমিল্লা মেডিকেল কলেজকে করোনা রোগীদের জন্য প্রস্তুত করবো।

এমপি বাহার বলেন, আগে থেকেই কুমিল্লা আদর্শ সদর উপজেলার আলেখারচর ফরটিজ হাসপাতালকে করোনা চিকিৎসার জন্য প্রস্তুত রাখভ হয়েছিল, এখন আইসিইউ সহ কুমিল্লা মেডিকেল কলেজকে প্রস্তুত করা হচ্ছে। কুমিল্লাবাসীর প্রতি আপনার ম্যাসেজ কি এ প্রশ্নের জবাবে এমপি বাহার বলেন, আমরা বাইরে আছি, কুমিল্লাবাসী ঘরে থাকুন।

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক মো. মুজিবুর রহমান জানান, কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসিইউতে শুধু করোনা প্রজিটিভ রোগীদেরই চিকিৎসা দেয়া হবে।

বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মনিরুল হক সাক্কু, জেলা প্রশাসক মো. আবুল ফজল মীর, জেলা পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম, জেলা সিভিল সার্জন মো. নিয়াতুজ্জামান, বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশন (বিএমএ) ও স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ (স্বাচিপ) কুমিল্লা জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক মোরশেদুল আলম ও স্থানীয় সরকার সন্ত্রীর বিশেষ মুখপাত্র মোঃ কামাল হোসেন।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: