ডেস্ক রির্পোটঃ কুমিল্লা চান্দিনায় মেয়েকে বাল্যবিবাহ দেয়ার অপরাধে মেয়ের বাবা মো. আলী আশ্রাফকে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে ছয় মাসের সশ্রম কারাদন্ড দিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার স্নেহাশীষ দাশ।

সোমবার (১৪ অক্টোবর) দুপুরে চান্দিনা উপজেলার গল্লাই ইউনিয়নের পাচধারা গ্রামে ওই ঘটনা ঘটে।

আলী আশ্রাফ চান্দিনা উপজেলার গল্লাই ইউনিয়নের পাচধারা গ্রামের আব্দুস ছাত্তারের ছেলে।

এ সময় উপস্থিত ছিলন সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাঈমা ইসলাম, চান্দিনা থানার এ.এস. আই আমির হোসাইন এবং সঙ্গীয় ফোর্স।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা স্নেহাশীষ দাশ বলেন, গত ১৩ অক্টোবর রবিবার সকালে ওই বাল্য বিবাহের ব্যাপারে জানতে পেড়ে আমি গল্লাই ইউপি চেয়ারম্যান মো. জসিম উদ্দিন এর মাধ্যমে মেয়ের বাবা আলী আশ্রাফকে নিষেধ করা হয়েছিল। নিষেধ করার পরেও আশ্রাফ তার মেয়েকে বাল্য বিবাহ দিয়ে মেয়ের শশুর বাড়ীতে পাঠিয়ে দেয়।

এই ঘটনাটি জানতে পেড়ে আজ ১৪ অক্টোবর সোমবার সহকারী কমিশনার (ভুমি) নাঈমা ইসলাম এবং পুলিশ পাঠিয়ে তাকে অাটক করে । পরে আশ্রাফ নিজের দোষ স্বীাকার করে স্বীকারোক্তি দেয়ায় তাকে মোবাইল কোটের মাধ্যমে ছয় মাসের সশ্রম কারাদন্ড দিয়েছি।
তিনি আরো বলেন, বাল্য বিবাহের ব্যাপারে চান্দিনা কোথায়ও কাউকে কোন ছাড় দেয়া হবে না।