নাঙ্গলকোট প্রতিনিধিঃ কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার অলিপুর বাজার ছুপিয়া নীরিয়া হাফেজীয়া মাদ্রাসার লম্পট শিক্ষক কবির আহমেদ কর্তৃক ওই মাদ্রাসার হেফজ বিভাগের এক শিক্ষার্থীকে বলৎকার করেছে। ঘটনাটি মিমাংসা করেছে ৫০ হাজার টাকার বিনিময়। গত বৃহস্পতিবার রাতে মাদ্রাসায় এই ঘটনাটি ঘটে।

এরপর ওই শিশুর ব্যাথা হলে তখন সেই বাড়ীতে গিয়ে পরিবারকে বিষয়টি খুলে বলে।

একটি প্রভাবশালী মহল ৫০ হাজার টাকা শিশুর পরিবারকে দিয়ে মাদ্রাসায় বসে রোববার রাতে নেক্কার জনক ঘটনাটি সমাধান করেন।

নাম প্রকাশ অনিচ্ছুক সালিস বৈঠক কারীদের মধ্যে দুই জন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

এই ঘটনায় পুরো এলাকাজুড়ে চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। পূর্ব ও আরোও দুটি অভিযোগ উঠেছে ওই মাদ্রাসার শিক্ষকদের বিরুদ্ধে। সোমবার ওই শিশুটির মা, বলেন অবুজ শিশুর সাথে যে অপরাধ করেছে এর এ বিচার আল্লাহ একদিন করবে।

অভিযোগের বিষয়ে অভিযুক্ত শিক্ষক কবির আহমদের বক্তব্য নিতে মাদ্রাসায় গিয়েও তার বক্তব্য নেয়া যায়নি,কারন ঘটনার পর থেকে লম্পট এলাকা ছাড়া। অপরদিকে মাদ্রাসার অধক্ষ্য মাওলানা মাঈন উদ্দীনকে ও সরেজমিন পাওয়া যায়নি। তার মোবাইল ফোন ও বন্ধ পাওয়া যায়।