করোনাভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে মারা গেলেন কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃবিজ্ঞান বিভাগের ১১তম ব্যাচের শিক্ষার্থী আবুল হাসান। রোববার (৮ আগস্ট) দুপুর আড়াইটার দিকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন তিনি।

আবুল হাসান কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলার সাতবাড়িয়া গ্রামের আব্দুল জলিলের সন্তান। আবুল হাসানসহ এ নিয়ে গত ১০ দিনে মারা গেলেন কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের তিন শিক্ষার্থী।

নৃবিজ্ঞান বিভাগের সভাপতি আইনুল হক বলেন, আবুল হাসান কয়েক দিন ধরেই বেসরকারি হাসাপাতালে ভর্তি ছিল। গত শুক্রবার কিছুটা সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে সে। তবে শ্বাসকষ্ট বেড়ে যাওয়ায় আজ কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

২৯ জুলাই ফুসফুসে সংক্রমণজনিত কারণে ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে মারা যান গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের ১২তম ব্যাচের শিক্ষার্থী মেহেদী হাসান তানিন। এছাড়া ৭ আগস্ট হৃদরোগে মারা যান গণিত বিভাগের ৭ম ব্যাচের শিক্ষার্থী মোশাররফ হোসেন। সর্বশেষ আজ মারা গেলেন আবুল হাসান।

১০ দিনের ব্যবধানে তিন শিক্ষার্থীর মৃত্যুতে পুরো বিশ্ববিদ্যালয় পরিবারজুড়ে নেমে এসেছে শোকের ছায়া। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমসহ বিভিন্ন মাধ্যমে শোক প্রকাশ করছেন তাদের সহপাঠী ও শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: