করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে কুমিল্লার দেবীদ্বার ও চান্দিনা উপজেলার দুজন মারা গেছেন। এ নিয়ে জেলায় এই ভাইরাসে মৃত ব্যক্তির সংখ্যা এখন ২২।

জেলা করোনা বিষয়ক ফোকাল পারসন ও কুমিল্লার ডেপুটি সিভিল সার্জন মো. সাহাদাত হোসেন মঙ্গলবার বিকেলে প্রথম আলোকে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, সোমবার সন্ধ্যায় কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলার মহারং গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা মান্নান খান করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যান। এর একদিন আগে অর্থাৎ ২৪ মে তাঁর দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছিল।

উপজেলা অনুযায়ী বিস্তারিত হিসাব পেতে ভিজিট করুনঃ
=> কুমিল্লার করোনা আপডেট

এদিকে দেবীদ্বার উপজেলার রাজামেহার গ্রামের ৬৫ বছরের এক ব্যক্তি শুক্রবার সন্ধ্যায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান। তাঁর ‘ব্রেন স্ট্রোক’ হয়েছিল। এ ছাড়া সর্দি, কাশিসহ করোনাভাইরাসের বিভিন্ন উপসর্গ ছিল। মৃত্যুর পর তাঁর দেহ থেকে নমুনা সংগ্রহ করা হয়। মঙ্গলবার নমুনা পরীক্ষার প্রতিবেদন করোনা ‘পজিটিভ’ আসে।

কুমিল্লা এখন পর্যন্ত শনাক্ত মোট করোনা রোগীর সংখ্যা ৬৭২। তাঁদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ৯৬ জন। এক নারীসহ মারা গেছেন ২২ জন। মৃত ব্যক্তিদের মধ্যে দেবীদ্বারের ১০ জন, মুরাদনগরের ৫ জন, চান্দিনার ৪ জন, কুমিল্লা সিটি করপোরেশন এলাকার একজন, আদর্শ সদর উপজেলার একজন ও ব্রাহ্মণপাড়ার একজন।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: