আগে থেকেই পূর্বাভাস ছিল মঙ্গলবার (১৯ জানুয়ারি) পর দেশে বৃষ্টিপাত হতে পারে। সেই পূর্বাভাসই সত্যি হলো। আজ বুধবার (২০ জানুয়ারি) সকাল ১০টার পর থেকে কুমিল্লার বিভিন্ন স্থানে শুরু হয়েছে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি। ফলে বেড়ে গেছে শীতের তীব্রতাও।

দেশের অন্য এলাকায় আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে। মধ্যরাত থেকে সকাল পর্যন্ত সারাদেশে মাঝারি বা ঘন কুয়াশা পড়তে পারে এবং তা কোথাও কোথাও দুপুর পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে। সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা সামান্য বাড়তে পারে এবং দিনের তাপমাত্রা সামান্য কমতে পারে।

এ প্রসঙ্গে আবহাওয়া অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক কাওসার পারভীন বলেন, বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ বেশি থাকায় শীত অনুভূত হচ্ছে। দেশের সব স্থানেই তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রির বেশি। বুধবার থেকে দেশের বিভিন্ন স্থানে বৃষ্টিপাতের আশঙ্কা আছে। এই বৃষ্টি তিন দিন হতে পারে। ২৩ তারিখ থেকে শীত আরো বাড়বে। গুগল ওয়েদারে বুধবার বেলা ১১টা-১২টা এবং বিকেল ৪টা থেকে রাত ৮টার মধ্যে ঢাকায় বৃষ্টিপাতের আশঙ্কার কথা বলা হয়েছে। এ ছাড়া দেশের বিভিন্ন স্থানেও দুপুর ও রাতে বৃষ্টি হতে পারে। বৃষ্টিপাতের পরিমাণ ০ থেকে ২৫ মি.মি পর্যন্ত হতে পারে বলেও জানা গেছে।

এদিকে আজ ভোর ৫টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত দেশের অভ্যন্তরীণ নদীবন্দরের পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১২টার দেশের নদী অববাহিকায় মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশার কারণে দৃষ্টিসীমা ৩০০ মিটার বা কোথাও কোথাও এর চেয়ে কম হতে পারে। এসব এলাকার নৌ-যানকে সাবধানে চলাচল করতে বলা হয়েছে। তবে কোনো সংকেত দেখাতে হবে না।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: