কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার সুবিল ইউপিতে অপরিকল্পিত কালভার্ট নির্মাণে খালের গতিপথ বন্ধ হয়ে গেছে। এমন কাজে স্থানীয় কৃষকদের মাঝে ক্ষোভ বিরাজ করছে। তাদের বক্তব্য, ইউপির খাল খননের মাধ্যমে প্রবাহ ঠিক রাখার কথা, সেখানে অপরিকল্পিত কালভার্ট নির্মাণ করে খাল মেরে ফেলার উদ্যোগ নিয়েছে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, সুবিল গ্রামের পাশে রামপ্রসাদের খালের শাখা খালে প্রথম কালভার্টটি নির্মাণ করা হয়েছে। দ্বিতীয় কালভার্টটি বুড়িরপাড় এলাকায়। সব মিলিয়ে তিনটি কালভার্ট নির্মাণ করা হয়েছে। কালভার্টগুলো খালের পেটের ভেতরে করা হয়েছে। ভেতের দুই ফুটের মতো জায়গা রাখা হয়েছে। এতে পানির প্রবাহ বাধাগ্রস্থ হওয়া ছাড়াও পলি জমি খাল মরে যাবে। এছাড়া এই খালে বুড়িরপাড়ে রমিজ উদ্দিনের বাড়ির সামনে ড্রেনের মতো রেখে খাল ভরাট করা হয়েছে।

স্থানীয় এগারগ্রামের মোহাম্মদ শরীফ বলেন, এটা ইউপির হাস্যকর কাজ। খালের পেটের ভেতরে কালভার্ট করা অযৌক্তিক। এতে খাল মরে যাবে। খাল বাঁচাতে কালভার্টগুলো দ্রুত অপসারণ করা প্রয়োজন।

সুবিল ইউপি চেয়ারম্যান মো. আবু তাহের বলেন, ইউপির অর্থে তিনটি কালভার্ট নির্মাণ করা হয়েছে। খালে পানি কম তাই ছোট কালভার্ট নির্মাণ করা হয়েছে। খাল ভরাট হওয়ার বিষয়ে তিনি বলেন, ওটা তো খেলার মাঠ।

দেবিদ্বারের ইউএনও মো. রাকিব হাসান বলেন, খালে কালভার্ট নির্মাণের বিষয়ে অভিযোগ পেয়েছি। এসিল্যান্ডকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। তিনি তদন্ত করে প্রতিবেদন দেবেন। শিগগিরই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: