কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার বাঙ্গড্ডা ইউপির যুবলীগের আহবায়ক সাইফুল সাইফুলকে জড়িয়ে মিথ্যা সংবাদ প্রচারের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন ও বিক্ষোভ মিছিল করা হয়েছে।

সোমবার বাঙ্গড্ডা একটি রেস্টুরেন্ট এই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। সংবাদ সম্মেলন লিখিত বক্তব্যে সাইফুল ইসলাম বলেন- রোববার (৫ জুলাই) দৈনিক সমকাল ও দৈনিক নয়াদিগন্ত পত্রিকায় তার বিরুদ্ধে একটি হত্যা কান্ডের হুমকি দাতা উল্ল্যখ করা হয়েছে। যা সত্য নয়, প্রকৃত পক্ষে আগামি ইউপি নির্বাচনে বাঙ্গড্ডা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান হিসাবে নির্বাচন করবেন তিনি। এতে রাজনৈতিক প্রতিপক্ষে তার সুনাম ক্ষুণ্ণ করতে এমন অপপ্রচার করছে বলে তিনি বাদী করা হয়। সংবাদ সম্মেলন শেষে আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। মিছিলে নয়াদিগন্ত ও সমকালের বিরুদ্ধে বিভিন্ন স্রোগ্রান দেন।

এসময় উপস্হিত ছিলেন, ইউপি আওয়ামীলীগের সভাপতি আব্দুর রশিদ, সাধারণ সম্পাদক পেয়ার আহাম্মদ, ইউপি সদস্য ইসহাক, জামাল, ইউপি যুবলীগ যুগ্ম-আহবায়ক দীলিপ মজুমদার, আবু জাফর মজুমদার প্রমূখ।

লিখিত বক্তব্যে তিনি আরও বলেন, মহামারি করোনার সময়েও হত্যা, খুন, মিথ্যাচার, অসামাজিক কর্মকাণ্ড দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। রায়কোট উত্তর ইউপির মন্তলী ব্রীজের পাশে এক ব্যাক্তির লাশ পাওয়া যায়। তিনি শ্রীরামপুর গ্রামের মহসিন।

মহসিনের হত্যাকান্ড নিয়ে সমকাল, নয়াদিগন্ত পত্রিকাসহ আমার রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ এই হত্যা কান্ড নিয়ে আমার বিরুদ্ধে অপপ্রচার করে আসছে। মহসিন বাঙ্গড্ডা ইউপির আঙ্গুলখোঁড় গ্রামে পরিবার সহ বসবাস করে আসছেন।তিনি একজন শ্রমজীবী মানুষ।তাঁর হত্যাকান্ড নিন্দনীয়, ঘৃণিত ও শাস্তিযোগ্য অপরাধ।আমি প্রথমেই আপনাদের মাধ্যমে আইন শৃংখলা বাহিনীকে আহবান জানাবো ঘটনা তদন্ত করে খুনিদের আইনেদের আওতায় আনা হোক।

দু:খ ভারাক্রান্ত মনে আপনাদেরকে জানাতে চাই,মহসিন আমার রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ নয়,আমার ব্যবসায়ি পার্টনারও নয়,তার সাথে কোন ধরনের মান-অভিমান বা শত্রুতা মুলক কোন কিছুই আমার সাথে ছিলো না।

বাঙ্গড্ডা ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক ও ন উপজেলা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক পদে আছি।এলাকায় সামাজিকতা করি।এলাকায় নিজের সাধ্যানুযায়ী গরীব ও আসহায়দের সাহায্য সহায়তা করে থাকি। সামাজিক বিরোধ নিষ্পত্তিতে নিরপেক্ষ থেকে সমাধান করার চেষ্টা করি।কারো কাছ থেকে কখনো ঘুষ গ্রহন করি নাই।আমার উপস্থিতির কারনে অনেক সময় ঘুষখোর জনপ্রতিনিধি ও সমাজপতিগণ অন্যায় বিচার চাপিয়ে দিয়ে আসতে পারেন না। তাছাড়া বাঙ্গড্ডার সর্বস্তরের জনগণ জানেন আমি আগামিতে বাঙ্গড্ডা ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা (প্রার্থী) করবো। সমকাল ও নয়াদিগন্তের বিরুদ্ধে তিনি আইনী ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন বলে জানান।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: