বুড়িচংয়ে প্রবাসীর স্ত্রীকে ছুরিকাঘাত করে হত্যা

মোঃ জাকির হোসেনঃ কুমিল্লার বুড়িচং উপজেলার বাকশীমূল ইউনিয়নের পানার পুকুর পাড় এলাকায় গতকাল সোমবার সকালে জাকির হোসেন (৩০) নামে এক যুবক সৌদিআরব প্রবাসীর বাড়ীতে প্রবেশ করে সেতারা বেগম (৪০) নামে প্রবাসীর স্ত্রীকে ছুরিকাঘাত করে হত্যা করেছে।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, জেলার বুড়িচং উপজেলার বাকশীমূল ইউনিয়নের পানারপুকুরপাড় গ্রামে সৌদি আরব প্রবাসী আবুল বাশারের স্ত্রী সেতারা বেগম পার্শ্ববর্তী এলাকার মৃত ওয়াছ মিয়ার ছেলে ফর্নিচার মিস্ত্রি মোঃ জাকির হোসেনে’কে দিয়ে বিভিন্ন সময় ফার্নিচার ও আসবাপত্র তৈরী করতো। এ সুবাধে জাকির হোসেন সেতেরা বেগমের বাড়ীতে যাওয়া আসা করতো। জাকির হোসেনকে স্থানীয়রা রাতের বেলাও সেতারা বেগমের বাড়ীতে দেখতো। গতকাল ২ জুলাই সোমবার সকাল ৮ টায় সেতারা বেগমের মেয়ে কলি আক্তার তার সন্তানকে নিয়ে স্কুলে চলে আসে। সেতারা বেগম তখন বাড়ীতে একা ছিল। কিছুক্ষন পর আত্মচিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে সেতারা বেগমকে ঘরের মেঝেতে রক্তাক্ত অবস্থায় দেখতে পায়। এসময় সেতারা বেগম জানায়, জাকির হোসেন তাঁকে একাধিক ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে গেছে। স্থানীয়রা সেতারা বেগমকে উদ্ধার করে দ্রুত কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাঁকে মৃত ঘোষনা করেন। খবর পেয়ে বুড়িচং থানার ওসি (তদন্ত) মেজবাহ উদ্দিন ঘটনাস্থলে পৌছায়। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে একটি গৃহস্থলীর কাজে ব্যবহৃত ছোড়া উদ্ধার করে।

বুড়িচং থানার ওসি (তদন্ত) মেজবাহ উদ্দিন জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌছে প্রবাসীর স্ত্রীর রুম থেকে একটি রক্তমাখা ছোড়া ও সিগেরেটের প্যাকেট উদ্ধার করা হয়েছে। নিহত সেতারা বেগম মৃত্যুপূর্বে পরিবারের লোকজন ও স্থানীয়দের জাকির হোসেনে নাম বলেছে। হত্যার প্রকৃত কারন এখনো জানা যায়নি। নিহতের লাশ কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে আছে। সুরতহাল ও ময়নাতদন্ত রিপোর্টের প্রেক্ষিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। তবে এ বিষয়ে পরিবারের পক্ষ থেকে এখনো থানায় লিখিত অভিযোগ করেনি।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ