কুমিল্লার ব্রাহ্মণপাড়ায় স্বাস্থ্যবিধি না মেনে ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান পরিচালনা করায় তিন প্রতিষ্ঠানকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে জরিমানা করেছেন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোহাম্মদ জাফর সাদিক চৌধুরী। ১৭ মে রবিবার দুপুর থেকে বিকেল পর্যন্ত ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা বড়ধুশিয়া ও চান্দলা বাজর এলাকায় সামাজিক দূরত্ব, গ্লাভস ও মাস্ক ব্যবহার না করায় এসব প্রতিষ্ঠানকে এ জরিমানা করা হয়। এছাড়াও ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান চলাকালে স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দূরত্ব না মানায় বেশ কয়েকজন ক্রেতাকেও একই আইনে জরিমানা করা হয়।

বিজ্ঞাপন

জানা গেছে, করোনা ভাইরাস সংক্রমণ রোধে সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করণের লক্ষে ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফৌজিয়া সিদ্দিকার নির্দেশে নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোহাম্মদ জাফর সাদিক চৌধুরী উপজেলা বিভিন্ন হাট বাজারে অভিযান পরিচালনা করেন। এসময় তিনি উপজেলা বড়ধুশিয়া বাজারের ব্যবসায়ী হাসান মিয়া, চান্দলা বাজারের আব্দুর রহিম এবং একই বাজারের ব্যবসায়ী কবির মিয়া সহ ৩ ব্যবসায়ী ও বিভিন্ন ক্রেতাদের সরকারি নির্দেশনা অমান্য করা এবং স্বাস্থ্যবিধি না মানার অপরাধে ১২ হাজার টাকা জরিমানা করেন।

এব্যাপারে নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোহাম্মদ জাফর সাদিক চৌধুরী বলেন, সরকার স্বাস্থ্যবিধি মেনে দোকানপাট খোলার অনুমতি দিয়েছে। কিন্তু ব্যবসায়ীরা এসবের তোয়াক্কা না করে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে ব্যবসা পরিচালনা করছেন। যা করোনা সংক্রমণে সহায়ক। ফলে ভয়াবহ পরিস্থিতি সৃষ্টি হতে পারে। সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মানা হচ্ছে কি-না তা নিশ্চিত করতে এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।