কুমিল্লার দেবিদ্বারে পুকুর পাড়ের মাটি কাটতে গিয়ে মাটিচাপা পড়ে এক শ্রমিকের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। বুধবার বেলা পৌনে ১১ টার দিকে উপজেলার সুবিল ইউপির পশ্চিম পোমকাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মো. শফিকুল ইসলাম ওই গ্রামের মো. মোখলেছুর রহমানের ছেলে। পরে স্থানীয়রা গাছসহ চাপা পড়া মাটি কেটে মৃত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ থানায় নিয়ে আসেন। দেবিদ্বার থানার ওসি মো. আরিফুর রহমান এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মিয়াজি মামুন নামে এক ব্যক্তি জানান, সুবিল ইউপির পশ্চিম পাড়া এলাকার মো. ছিদ্দিকুর রহমান তার পুকুর পাড়ের মাটি কাটতে মো. সফিকুল ইসলামকে শ্রমিক হিসেবে নেন। পরে সফিকুল সকাল থেকে পুকুরের মাটি কাটায় কাজে নামেন। সফিকুল ইসলাম পুকুর পাড়ের নিচের অংশে মাটি কাটছিলেন। পরে পুকুরের পাড়ের ওপর গাছসহ মাটি সফিকুলের ওপর ধসে পড়ে এতে ঘটনাস্থলেই সফিকুলের মৃত্যু হয়। পরে স্থানীয় লোকজন মাটি কেটে সফিকুল ইসলামকে মৃত উদ্ধার করেন।

এ ঘটনায় খবর পেয়ে দেবিদ্বার থানার ওসি মো. আরিফুর রহমানসহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

সুবিল ইউপি চেয়ারম্যান মো. আবু তাহের বলেন, সফিকুল মাটি কাটার শ্রমিক। সকালে একই এলাকার ছিদ্দিকুর রহমানের পুকুরে মাটি কাটতে গেলে পাড়ের ওপরের গাছসহ মাটি ধসে পড়ে সফিকুলের ওপর এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। নিহতের পরিবারের পক্ষে কোনো অভিযোগ নেই।

ওসি মো. আরিফুর রহমান জানান, গাছসহ মাটিচাপা পড়ে সফিকুল ইসলাম নামে এক শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ (কুমেক) হাসপাতালের পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুকুরের মালিক মো. ছিদ্দিকুর রহমানকে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। এ ব্যাপারে এখনো কেউ লিখিত অভিযোগ দেয়নি।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: