কুমিল্লার লাকসামে মুজাহিদুল ইসলাম (৫৫) নামে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে তার বড় ভাই ইদ্রিস আলীকে আটক করেছে পুলিশ। গতকাল শনিবার (১৮ জুলাই) বিকেলে লাকসাম উপজেলার উত্তরদা ইউনিয়নের পোলাইয়া গ্রামে এ হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটে।

সম্পত্তি নিয়ে পারিবারিক বিরোধের জের ধরে ইদ্রিস, তার পুত্র ও নাতি মিলে মুজাহিদকে হত্যা করেন বলে অভিযোগ করেছেন নিহতের স্ত্রী পারভীন আক্তার।

তিনি বলেন, ‘আমার ভাসুর ইদ্রিস আলীর সাথে আমার স্বামীর সম্পত্তি সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছে। আমাদের ৫ মেয়ে। কোন ছেলে সন্তান না থাকায় তারা বিভিন্নভাবে আমাদেরকে হয়রানি করে আসছে। শনিবার (১৮ জুলাই) দুপুরে ভাসুরের সাথে আমার স্বামী মুজাহিদুল ইসলামের বাকবিতন্ডা হয়। একপর্যায়ে ইদ্রিস আলী, তার ছেলে ইমরান হোসেন এবং নাতি মাহিরসহ পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা মিলে আমার স্বামী মুজাহিদুল ইসলামকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। পরে মুমূর্ষূ অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে লাকসামের একটি প্রাইভেট হাসপাতালে নিয়ে যাই। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

এদিকে হত্যাকান্ডের খবর পেয়ে লাকসাম থানা পুলিশ মুজাহিদুল ইসলামের মরদেহ উদ্ধার করে এবং অভিযুক্ত বড় ভাই ইদ্রিস আলীকে আটক করেছে।

হত্যার বিষয়টি নিশ্চিত করে লাকসাম থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ নিজাম উদ্দিন জানান, এ ঘটনায় একজনকে আটক করা হয়েছে। মামলা ও তদন্ত সাপেক্ষে জড়িত অন্যান্যদের গ্রেপ্তার করা হবে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: