মো.জাকির হোসেনঃ কুমিল্লার বুড়িচং উপজেলার ময়নামতি ইউনিয়নের একটি গ্রামে বৃহস্পতিবার দুপুরে লিয়াকত আলী (৫৮) নামের এক লম্পটের লালসার শিকার হয়েছে স্বপ্না (ছদ্মনাম) নামের ১১ বছরের এক স্কুল শিক্ষার্থী শিশু । এঘটনায় গতকাল শনিবার সন্ধ্যায় স্থানীয় দেবপুর ফাঁড়ি পুলিশ অভিযান চালিয়ে লম্পট লিয়াকত আলীকে আটকে থানায় নিয়ে আসে।

ধর্ষিতার পরিবার সুত্রে জানা যায়,জেলার বুড়িচং উপজেলার ময়নামতি ইউনিয়নের ময়নামতি ওয়ার সিমেট্টি সংলগ্ন একটি গ্রামের ৩য় শ্রেনীর এক স্কুল ছাত্রী শিশুকে ১ মার্চ দুপুরে কৌশলে ডেকে নিয়ে শ্লীলতাহানীসহ ধর্ষণ করে লিয়াকত আলী নামের এক নরপশু। পরে ধর্ষিত শিশুটিকে ২০ টাকা দিয়ে বাড়িতে পাঠিয়ে দেয় ওই লম্পট। বিষয়টি পরবর্তিতে শিশুটি তার মাকে জানালে ওই দিন সন্ধ্যায় নিয়ে আসা হয় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ।

ধর্ষিতার চাচা ওমর ফারুক জানান,আমরা ধর্ষকের সুষ্ঠু বিচার চাই। কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন শিশুটি তার অভিভাবকের উপস্থিতিতে সংবাদকর্মীদের কাছে ধর্ষনের ঘটনার বর্ণণা করেন। গতকাল শনিবার বিকেলে শিশুটির পরিবার বুড়িচং থানা পুলিশকে অবহিত করলে ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনোজ কুমার দে’র নির্দেশে দেবপুর ফাঁড়ির এএসআই ইকবালের নেতৃত্বে একটি দল অভিযান চালিয়ে লম্পট লিয়াকত আলীকে আটকে বুড়িচং থানায় নিয়ে আসে।

ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, এব্যাপারে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: