লাকসাম প্রতিনিধিঃ হাইকোর্টের স্থগিতাদেশ উপেক্ষা করে লাকসামে জমিদার চন্দ্র কুমার রায় চৌধুরীর শত বছরের অধিক সময় থেকে চলাচলকারী বাড়ির রাস্তা বন্ধ করে দিয়ে লাকসাম পৌর এলাকা ভূমি অফিসের সীমানা প্রাচীর নির্মানের অভিযোগ উঠেছে। ভূমি সহকারী কর্মকর্তা নুরুল আলম ছিদ্দিকী ভূমি অফিসের মালিকানা দাবী করে এ প্রাচীর নির্মান করছেন বলে অভিযোগ করেন জমিদার চন্দ্র কুমার রায় চৌধুরীর বংশধররা।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, জমিদার চন্দ্র কুমার রায় চৌধুরীর শত বছরের অধিক সময় আরএস.সিএস খতিয়ান ভুক্ত ৬০৮দাগের চলাচলের এই রাস্তা তাদের দখলে আছে। দীর্ঘদিন থেকে রাস্তা এবং সম্পত্তি নিয়ে বিরোধ থাকায় এ নিয়ে হাইকোর্টে মামলা বিচারাধিন রয়েছে। শত বছরের চলাচলের বাড়ির এ রাস্তাটি নিয়ে গত কিছুদিন আগে হাইকোর্টের একটি স্থগিতাদেশ রয়েছে। কিন্তু ভূমি সহকারী কর্মকর্তা শত বছরের পুরনো চলাচলের রাস্তাকে বাউন্ডারী ওয়ালের ভিতরে ঢুকিয়ে সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করছে।

এ বিষয়ে লাকসাম পৌর এলাকা ভূমি সহকারী কর্মকর্তা নুরুল আলম ছিদ্দিকীকে একাধিকবার ফোন দিয়েও বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: