৯৩ বছর বয়সে বিয়ে করেছেন কুমিল্লা আইনজীবী সমিতির পাঁচবারের সাবেক সভাপতি ইসমাইল হোসেন। সোমবার বিকালে বিয়ের বিষয়টি আলোচনায় আসে। কাবিন হয় পাঁচ লাখ টাকা। বিয়েতে ৫০জনের মতো অতিথি উপস্থিত ছিলেন বলে জানা গেছে। পাত্রীর বর্তমান বাসা কুমিল্লা নগরীর দেশওয়ালীপট্টিতে। আদি বাড়ি ব্রাহ্মণবাড়িয়ায়। তার বয়স ৪০বছর। নাম মিনারা বেগম। আইনজীবী ইসমাইল হোসেনের বাড়ি আদালতের নিকটে নগরীর ছোটরায়। তার পাঁচ ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে।

এদিকে ইসমাইল হোসেনের বিয়ের ছবি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে আলোচনা চলছে। তবে অনেকে বিষয়টিকে ইতিবাচকভাবে দেখছেন। নিঃসঙ্গতাবোধ থেকে তিনি বিয়ে করেছেন বলে অনেকের ধারণা। কারণ তার প্রথম স্ত্রী মাহমুদা বেগম ৫বছর আগে মারা গেছেন।

কুমিল্লা আদালতের আইনজীবী আনিসুর রহমান মিঠু বলেন, শুনেছি ইসমাইল সাহেবের জুনিয়র অ্যাডভোকেট মিতুর বাসায় এই বিয়ে হয়েছে। আরেক আইনজীবী কাজী আসিফ বলেন, ইসমাইল সাহেব এখনও আদালতে প্র্যাকটিস করেন। অনেক আগে স্ত্রী মারা গেছেন। তিনি একাকীত্ব থেকে মুক্তি পেতে বিয়ে করেছেন বলে শুনেছি।

অ্যাডভোকেট ইসমাইল হোসেনের ছেলে জসিম উদ্দিন বলেন,আমরা বাবার বিয়ে সম্পর্কে জানতাম না। আজ দুপুরে শুনেছি তিনি নতুন বউ নিয়ে বাসায় এসেছেন।

অ্যাডভোকেট ইসমাইল হোসেন বলেন,রবিবার সন্ধ্যায় বিয়ে করেছি। আমার নতুন সহধর্মিনী ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মেয়ে। সোমবার ছোটরার বাসায় এসেছি। আমাদের জন্য দোয়া করবেন।

উল্লেখ্য-এর আগে ৬৭ বছর বয়সে বিয়ে করে আলোচনায় আসেন সাবেক রেলমন্ত্রী কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামের সংসদ সদস্য মুজিবুল হক। তবে ওই বিয়েটি ছিল মন্ত্রীর একমাত্র বিয়ে। মন্ত্রীর ওই বিয়েও বেশ আলোচনার জন্ম দেয়।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: