কুমিল্লায় বোয়াল মাছের বিরুদ্ধে ১০ লাখ টাকার রেনু পোনা খাওয়ার অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ মৎস্য প্রকল্পে বোয়াল মাছের বিরুদ্ধে ১০ লাখ টাকার রেনু পোনা খেয়ে ফেলার অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি ঘটেছে কুমিল্লার দাউদকান্দি উপজেলার দৌলতেরকান্দি গ্রামে।

ওই গ্রামের আহাম্মদ চেয়ারম্যানের মৎস্য চাষ প্রকল্পটি লিজ নিয়ে মাছ চাষ করে আসছে দাউদকান্দি উপজেলার বিশিষ্ট মৎস্য চাষী মো. আলী আহাম্মেদ মিয়াজী। গেল মাসে ওই প্রকল্পটিতে প্রায় ১০ লাখ টাকার বিভিন্ন জাতের রেনু পোনার চাষ করেন তিনি। রেনু পোনা চাষের পর থেকে প্রতিদিনই রেনু পোনার পরিমান কমতে থাকে। একপর্যায়ে চাষী চিন্তিত হয়ে পরেন।

রেনু কমতে থাকার কারণ, উদঘাটন করতে আজ প্রকল্পটি বিষ প্রয়োগ করে। বিষ প্রয়োগের কয়েকঘন্টা পর পানির উপর ১০ থেকে ১৫টি বোয়াল মাছ ভেসে উঠে তার মধ্যে দুটি বোয়ালকে আটক করতে সক্ষম হন চাষী।

মাছ চাষী মো. আলী আহাম্মেদ মিয়াজী জানান, প্রকল্পটি একমাস পূর্বে ১০ লাখ টাকার রেনু পোনার চাষ করি। প্রতিদিইউ এই রেনু পোনার পরিমান কমতে থাকে। আমি খুব চিন্তিত হয়ে পরি। কোন উপায় না পেয়ে আজকে প্রকল্পটিতে বিষ প্রয়োগ করি। বিষপ্রয়োগের কয়েক ঘন্টাপর দেখি ১০ থেকে ১৫টি বোয়াল মাছ পানিতে ভেসে উঠে। আমরা ধারনা করতে পেরেছি, এই বোয়াল মাছই রেনু পোনাগুলো খেয়ে ফেলেছে। রাক্ষস বোয়ালগুলোর মধ্যে দুটি ধরতে সক্ষম হয়েছি। বাকিগুলো ধরার প্রক্রিয়া চলছে।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ