ডেস্ক রিপোর্টঃ কুমিল্লার দাউদকান্দিতে ফ্যামিলি হাসপাতাল এন্ড ডায়গনষ্টিক সেন্টারে চিকিৎসকের ভুল চিকিৎসায় গর্ভবতী রিয়া (১৯) নামের এক প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ পাওয়া গেছে।

কুমিল্লার দাউদকান্দি থানার জুরানপুর (ভূইয়া বাড়ি) গ্রামের সোলেমান মিয়ার মেয়ে রিয়া।

প্রসূতি রিয়ার মা বলেন ,সিজার করানোর জন্যে প্রথমে ডাক্তার তার মেয়েকে অজ্ঞান করার জন্য ইনজেকশন পুশ করেন। আধা ঘন্টার মধ্যেই মেয়েটির শরীরে মারাত্মক যন্ত্রণা শুরু হয়ে চেহারা পরিবর্তন হতে শুরু করে। তড়িঘড়ি করে এম্বুলেন্স এ উঠানোর পরপরই মেয়েটি মারা যায়। ইনজেকশন পুশের করার পর মেয়েটার চেহারার এরকম অবস্থা হয়ে যায়।

পরিবারের লোকজন দাবি করছেন, ভুল চিকিৎসা দিয়ে ডাক্তার তাদের মেয়েকে মেরে ফেলেছেন। এটি কোন স্বাভাবিক মৃত্যু নয় তাকে হত্যা করা হয়েছে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ও ডাক্তারদের বিরুদ্ধে সরাসরি এমন অভিযোগ অভিভাবকদের।

>>আরো পড়ুনঃ  কুমিল্লায় জন্ম নিবন্ধন নিয়ে সীমাহীন দূর্নীতির অভিযোগ

এব্যাপারে হাসপাতালের পক্ষ থেকে কোন বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ