ডেস্ক রিপোর্টঃ ব্রিটিশ বিরোধী আন্দোলন হতে পাক হানাদার বাহিনীর বিরুদ্ধে স্বাধীনতার পক্ষে যারা সশস্ত্র সংগ্রাম করেছে তাদের অধিকাংশই কুমিল্লার কৃতি সন্তান। নজরুলের চারনভূমি কুমিল্লা, ভাষা আন্দোলনের কুমিল্লার ছাত্ররা বিপ্লবি ভূমিকা পালন করেছিল। তাছাড়াও কুমিল্লা ইতিহাস ঐতিহ্যের দিক থেকে ত্রিপুরা রাজ্যের রাজধানী ছিল। ইতিহাস ঐতিয্যের দিক থেকে বৃহত্তর কুমিল্লা অন্যান্য বিভাগ গঠনের পূর্বে বিভাগ আন্দোলন করে আসছে।

তাই আমি সরকারের নিকট অবিলম্বে কুমিল্লাকে বিভাগ ঘোষণার দাবী জানাচ্ছি। আগামী সংসদ বৈঠকে কুমিল্লা বিভাগের পক্ষে প্রস্তাব উত্থাপন করব। শনিবার দুপুরে কুমিল্লা টাউন হলে কুমিল্লার কৃতি সন্তান ৩য় বারের মত সংরক্ষিত আসনে নির্বাচিত সংসদ সদস্য অধ্যক্ষ রওশনআরা মান্নান এর সংবধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বিরোধী দলীয় চিফ হুইফ জাতীয় পার্টির মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গা উক্ত বক্তব্য রাখেন।

>>আরো পড়ুনঃ  কুমিল্লা ভ্রমণে একদিনে যা যা দেখবেন

কুমিল্লা (দ:) জেলা জাতীয় পার্টির আয়োজনে কুমিল্লা (দ:) জেলা জাতীয় পার্টির ১ম যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কবির মোহন এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন কুমিল্লার সদর আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা আ ক ম বাহার উদ্দিন বাহার এমপি, জেলা জাতীয় পার্টি নেতা সালামত আলী খান বাচ্চু।

অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন এস.এম গোলাম বায়েজীদ, মাহবুবুল আলম সেলিম, কাজী মো: নাজমুল, মিজানুর রহমান, রাশেদুল হাসেম ভূইয়া ও দুলাল। অনুষ্ঠানে অধ্যক্ষ রওশনআরা মান্নান এমপি কে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়।

অনুষ্ঠানে কুমিল্লা সদর আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা হাজী আকম বাহার উদ্দিন বাহার বলেন ময়নামতি নয় কুমিল্লা নামেই বিভাগ চাই। আমার পাশাপাশি অধ্যক্ষ রওশন আরা মান্নান এমপিও কুমিল্লার উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে। উনি আমার বড় বোনের মত। ভবিষ্যতেও দুই জন একসাথে কাজের মাধ্যমে এই উন্নয়নের ধারাকে অব্যাহত রাখব।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ