ডেস্ক রিপোর্টঃ অর্থমন্ত্রী ও কুমিল্লা জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আ হ ম মুস্তফা কামাল (লোটাস কামাল) বলেছেন, কুমিল্লা বিভাগ আমরা কুমিল্লা নামেই চাইবো। বিভাগ করার জন্য চারটি জেলা দরকার, আমাদের আছে তিনটি- কুমিল্লা, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, চাঁদপুর। নোয়াখালী, লক্ষীপুর, ফেনীকে আমরা আমাদের সাথে চেয়েছিলাম। কিন্তু তারা আসতে রাজি হয় নি। এখন কি আর করা। আরেকটি নতুন জেলা করে চারটি জেলা নিয়ে কুমিল্লা বিভাগ হবে। এ জন্য দেরি হচ্ছে।

তিনি বলেন, সকল ব্যবসায়ীর জন্য ব্যবসা বান্ধব সরকার হচ্ছে বর্তমান সরকার। অতীতের অন্য সরকার আর বর্তমান আওয়ামীলীগ সরকারের মধ্যে অনেক তফাৎ। আগামী পাঁচ বছর দেশের ক্যামেস্ট্রি পরিবর্তন করে দিবো ইনশাল্লাহ।

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল ইতালির রোমে আন্তর্জাতিক কৃষি উন্নয়ন তহবিলের (ইফাদ) গভর্নিং কাউন্সিলের দুই দিনব্যাপি ৪২তম অধিবেশনে যোগ দিতে সেখানে গেলে ইতালী আওয়ামী লী?গ তাঁকে সংবর্ধনা প্রদান করে। বুধবার রোমের পিয়াচ্ছা ভিত্তোরিওতে দেওয়া সংবর্ধনার জবাবে দেওয়া বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

>>আরো পড়ুনঃ  সাতক্ষীরার পুলিশ সুপার হলেন কুমিল্লার কৃতি সন্তান মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান

তিনি বলেন, আপনাদের ছেলে মেয়েদের হাত ধরে, যারা আগামী প্রজন্ম তাদের হাত ধরে, যারা দেশের চালিকা শক্তি হবে একদিন। তাদের হাত ধরে ২০৪১ সালে অবশ্যই পৃথিবীর কয়েকটি দেশের মধ্যে প্রথম সারির একটি দেশ হবে ইনশাল্লাহ।

আন্তর্জাতিক কৃষি উন্নয়ন তহবিলের (ইফাদ) গভর্নিং কাউন্সিলের দুই দিনব্যাপি ৪২তম অধিবেশন বৃহষ্পতিবার শুরু হয়। আর এ সম্মেলনে যোগ দিতে ইতোমধ্যে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল ইতালির রাজধানী রোমে পৌঁছেছেন। ইতালিতে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান সিকদার এবং দূতাবাসের অন্যান্য কর্মকর্তারা অর্থমন্ত্রীকে বিমানবন্দরে স্বাগত জানান। এছাড়া, ইতালি আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ এবং প্রবাসি বাংলাদেশীরা অর্থমন্ত্রীকে বিমানবন্দরে এবং হোটেলে স্বাগত জানান। ১৪ ফেব্রুয়ারি রোমস্থ তিনটি আন্তজাতিক সংস্থা- আন্তর্জাতিক কৃষি উন্নয়ন তহবিল, খাদ্য ও কৃষি সংস্থা এবং বিশ্ব খাদ্য সংস্থার প্রধানদের সাথে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল পৃথক পৃথক বৈঠক করেন। ১৫ ফেব্রুয়ারী ৪২তম গর্ভনিং কাউন্সিলের গ্রামীন উদ্ভাবন এবং উদ্যোক্তা বিষয়ে ইফাদে অনুষ্ঠিত অধিবেশনে অর্থমন্ত্রী মোস্তফা কামাল যোগ দেন।

>>আরো পড়ুনঃ  সাতক্ষীরার পুলিশ সুপার হলেন কুমিল্লার কৃতি সন্তান মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান

সংবর্ধনায় অর্থমন্ত্রী আরো বলেন, সবাইকে দেশ প্রেমিক হতে হবে। প্রবাসীরাই দেশের অর্থমন্ত্রী। বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে দেশ স্বাধীন হয়েছে, এবার তার সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে দেশের জন্য আনতে হবে অর্থনৈতিক মুক্তি।

ইতা?লি আওয়ামী লীগের সভাপতি ইদ্রিস ফরাজীর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবালের পরিচালনায় বক্তারা প্রবাসীদের বিভিন্ন সমস্যার কথা তুলে ধরলে অর্থমন্ত্রী বিমানবন্দরে হয়রানি বন্ধ ও ইতালি থেকে প্রবাসীদের লাশ সম্পূর্ণ বিনা খরচে পাঠানোর বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তবে প্রবাসীদের ওয়েজ আর্নার্জ কল্যাণ বোর্ডের সদস্য হওয়ার অনুরোধ জানান।

এসময় ইতালিস্থ বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান সিকদার সহ আওয়ামী লীগ ও সকল অঙ্গ সহযোগি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা শেষে অর্থমন্ত্রী মোস্তফা কামালকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানো হয়।

>>আরো পড়ুনঃ  সাতক্ষীরার পুলিশ সুপার হলেন কুমিল্লার কৃতি সন্তান মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান

বিমান বন্দরে সর্ব ইউরোপ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জি এম কিবরিয়া, ইতালী আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল, সিনিয়র সহ সভাপতি আবু সাঈদ খান, সহ সভাপতি হাজী মোঃ জসিম উদ্দিন, আবু তাহের সহ প্যারিস থেকে আসা আওয়ামীলীগ নেতা আলমগীর হোসেন অপু, এবং ইতালীস্থ কুমিল্লা প্রবাসী দ্বীন মোহাম্মদ মন্ত্রীর নিজ এলাকা কুমিল্লার লালমাই উপজেলার মনিরুল ইসলাম, জসিম উদ্দিন, মিজানুর রহমান, জালাল মজুমদার, মিজান শাহ, লিটন হকসহ অসংখ্য কুমিল্লা প্রবাসীসহ আওয়ামী যুবলীগ, ইতালী মহিলা আওয়ামীলীগ, আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগ, ছাত্রলীগ ইতালী শাখা, রোম মহানগর আওয়ামী লীগ, তুসকোলানা আওয়ামী লীগ, গাজীপুর জেলা সমাজ কল্যাণ সমিতিসহ অঙ্গ-সহযোগি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ