আরিফ আজগরঃ কুমিল্লা বিভাগের বাস্তবায়নের জন্য কুমিল্লা জেলা থেকে কয়েকটি উপজেলা নিয়ে লাকসাম জেলা হওয়ার গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে কয়েক দিন ধরে। ইতোমধ্যে বিভিন্ন পত্রপত্রিকায় প্রকাশিত হয়েছে কুমিল্লা ভাগের নিউজ।

বিশ্বস্ত সূত্রের মাধ্যমে অামরা জানতে পেরেছি, কুমিল্লা বিভাগ বাস্তবায়নের প্রয়োজনে নতুন একটি জেলা করা হবে। গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে, জেলাটি লাকসাম হবে। নতুন জেলার মধ্যে বরুড়াকে অন্তর্ভুক্ত করার পায়তারা চলছে। বরুড়াবাসী কোনোভাবেই তা মেনে নিবেনা।

সকল বিষয়ের অবসান করে বরুড়াবাসীর দাবী এখন একটাই যে কোন মূল্যে কুমিল্লা জেলা থেকে কুমিল্লা বিভাগ চায়। কুমিল্লা জেলা থেকে যদি বরুড়াকে আলাদা করা হয় তাহলে কঠিন কর্মসূচি পালন করা হবে।

আজ ২১ মার্চ (বৃহস্পতিবার) সকাল ১০টায় কুমিল্লা কান্দিরপাড় পূবালী চত্বরে ” বরুড়া রক্ষা অধিকার পরিষদ” সংগঠনের নেতৃবৃন্দ মানববন্ধন করেন। উক্ত মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন সংগঠনটির উদ্যোক্তা ও অাহবায়ক এমদাদ হোসেন শরিফ।
যুগ্ম অাহবায়ক লিটন পন্ডিত, কাজী অানেয়ার হোসেন, ফয়সাল ভূইয়া, মাওমুদুল হাসান শাওন, নাদিম মজুমদার, সোহেল পাটোয়ারী, এনাম খন্দকার। সদস্য সচিব, সুজন মজুমদার।

এসময় সকলের বক্তব্য, স্লোগানে মুখরিত হয়ে উঠে কুমিল্লার প্রাণকেন্দ্র কান্দিরপাড়। অন্য কোন জেলায় নয়, কুমিল্লা জেলা থেকেই কুমিল্লা বিভাগ বাস্তবায়ন চাই।

ঐ সময় অারো উপস্থিত ছিলেন বরুড়া রক্ষা পরিষদের সদস্য, কবির হোসেন মিঠুন, মোঃ মাসুদ আলাম, মোঃ শাহপরান, ফারজানা আক্তার নিপা, তাসনিয়া তাহের নুসরাত, মুন্নি অাক্তার নিপু, মোঃ রাহয়ান উদ্দিন, মেহেদি হাসান অন্তর, মোঃ আবুল খায়ের, মোঃ রুবেল, ইমাম হোসেন, রফিকুল ইসলাম, শাহ জালাল, সাইদ আহমেদ, তানজীল আহমেদ, রাশেদ নুর, হাসান মাহমুদ, আরিফ হোসেন, নাছির উদ্দিন, মোঃ আনোয়ার, রাইফ আল হাসান নাহিদ, রাহিনুল আমিন, হৃদয় চন্দ্র সিং, রায়হান চৌধুরী, সাব্বির হোসেন, তুষার হোসেন, হৃদয় সরকার, মোঃ ইয়াছিন, মহিউদ্দিন, জহিরুল ইসলাম, জাকির হোসেন, মোঃ পারভেজ, রাছেল হোসেন, আবু রায়হান, কামরুল হাসান, মাহমুদা, তিশা, সাদেক, মোঃ আব্দুল্লাহ, আবদুর রাজ্জাক, রাফেল রানা, মাহিন উদ্দিন, সানজিদুল ইসলাম, সহ আরও অনেক নেতৃবৃন্দ।