ডেস্ক রিপোর্টঃ জ্ঞাত আয় বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের মামলায় কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের মেয়র মনিরুল হক সাক্কুকে জামিন দিয়েছেন আদালত।

আজ সোমবার ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম (সিএমএম) শেখ হাফিজুর রহমান এ আদেশ দেন।

মেয়র সাক্কুর আইনজীবী মাসুদ আহমেদ তালুকদার এনটিভি অনলাইনকে বিষয়টি জানিয়েছেন।

মাসুদ আহমেদ জানান, উচ্চ আদালতের নির্দেশে মেয়র সাক্কু আজ জামিনের আবেদন করেন। বিচারক তাঁকে দশ হাজার টাকা মুচলেকায় জামিন মঞ্জুর করেন।

এর আগে ঢাকার আট নম্বর বিশেষ জজ সেলিমা বেগম মেয়র সাক্কুকে মামলার দায় থেকে অব্যাহতি দেন। ওই আদেশে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) ক্ষুদ্ধ হয়ে হাইকোর্টে অব্যাহতির আদেশ কেন অবৈধ হবেনা মর্মে আবেদন করেন।

পরে ওই আদেশ বেআইনি কেন ঘোষণা করা হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেন হাইকোর্ট।
একই সঙ্গে এ মামলায় মেয়র সাক্কুর জামিন বাতিল করে বিচারিক আদালতে আত্মসমর্পণ করার নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

গত বছরের ১৮ এপ্রিল মামলার অভিযোগপত্র আমলে নিয়ে সাক্কুর বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত। এরপর ওই বছরের ৯ মে আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন নেন সাক্কু।
এক কোটি ১২ লাখ ৪০ হাজার টাকার তথ্য গোপন এবং চার কোটি ৫৮ লাখ টাকা জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পত্তি অর্জনের অভিযোগে বিএনপি নেতা ও মেয়র মনিরুল হক সাক্কুর বিরুদ্ধে মামলা হয়।

মামলার নথি সূত্রে জানা যায়, ২০০৮ সালের ৭ জানুয়ারি রাজধানীর রমনা থানায় মনিরুল হক সাক্কুর বিরুদ্ধে দুদক এ মামলা করে। পরে ২০১৬ সালের নভেম্বরে মনিরুলকে অভিযুক্ত করে ঢাকার সিএমএম আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে পুলিশ।

গত বছরের ৩০ মার্চ কুমিল্লা সিটিতে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। এতে আওয়ামী লীগের প্রার্থীকে পরাজিত করে মেয়র নির্বাচিত হন বিএনপির প্রার্থী মনিরুল হক সাক্কু। টানা দ্বিতীয়বারের মতো মেয়রের দায়িত্ব নেন তিনি।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: