কুমিল্লার বুড়িচংয়ে হত্যাকান্ডের ২ বছর ৯ মাস পর আসামী মোঃ হৃদয়কে আটক করেছে পুলিশ ব্যাুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। গ্রেফতার মোঃ হৃদয় (১৯) বুড়িচং উপজেলার জগতপুর গ্রামের বাসিন্দা মৃত অলি আহাদের ছেলে।

শনিবার সকাল সাড়ে ১০ টায় জেলার দেবিদ্বার উপজেলা শিবপুর এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়। রবিবার দুপুরে গ্রেফতার হৃদয়কে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পিবিআইয়ের উপ-পরিদর্শক মোঃ শাহাদাৎ হোসেন।

মামলার এজহার ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ২০১৮ সালের ১ নভেম্বর জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে অলি আহাদ তার মা নুরজাহান বেগম (৬৫) কে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে বাড়ীর পাশে ধানী জমিতে ফেলে চলে যায়। মাকে হত্যার ঘটনায় তার স্ত্রী রুবি আক্তার ও তার ছেলে হৃদয় সহযোগিতা করে।

এলাকাবাসী জানায়, অলি আহাদ একজন ডাকাত। তার বিরুদ্ধে এক ডজনের বেশী মামলা ছিলো। মাকে হত্যার পরের বছর ২০১৯ সালে ক্রস ফায়ারে মারা যায় অলি আহাদ। এদিকে খুনের ঘটনায় অলি আহাদের স্ত্রী রুবি আক্তার কারাভোগের পর বর্তমানে জামিনে রয়েছেন। তাদের ছেলে হৃদয় দীর্ঘদিন পলাতক থাকার পর গতকাল শনিবার সাড়ে ১০ টায় দেবিদ্বার থানার শিবপুর এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়। হৃদয় এজহার নামীয় ৩ নম্বর আসামী।

পিবিআইয়ের উপপরিদর্শক মোঃ শাহাদাৎ হোসেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে হৃদয় হত্যার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে। আমরা আদালতের কাছে ৭ দিনের রিমান্ড চাইবো।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: