কুমিল্লার দাউদকান্দিতে গাছের সঙ্গে শেকলে বেঁধে যুবককে কুপিয়ে জখম

ডেস্ক রিপোর্টঃ কুমিল্লার দাউদকান্দি উপজেলায় দুর্বৃত্তদের দিয়ে শাহীন নামে এক যুবককে গুরুতর জখম করার অভিযোগ উঠেছে বাবার বিরুদ্ধে। গত বুধবার উপজেলার সুন্দলপুর গ্রামে (পূর্বপাড়ায়) এই ঘটনা ঘটে।

ওই ঘটনায় আজ শনিবার দাউদকান্দি মডেল থানায় নয় জনকে আসামি করে একটি মামলা দয়ের করা হয়েছে। মামলার আসামিরা হলেন- শিরিন আক্তার, সাইফুল, ফাতেমা বেগম, জান্নাত, সেলিম, আনোয়ার হোসেন, রাজ্জাক, শরীফ, ও আলমগীর হোসেন।

হাসপাতালে শাহীনের সঙ্গে দেখা করলে তিনি গণমাধ্যমকর্মীদের কাছে অভিযোগ করেন, বাবা দ্বিতীয় বিয়ে করার পর বেশ কিছুদিন থেকে শাহীনের সঙ্গে বসত বাড়ি ও জমি নিয়ে বিরোধ চলছিল। গত বুধবার বাবার ভাড়া করা একদল দুর্বৃত্ত শাহীনকে গাছের সঙ্গে শেকল দিয়ে বেঁধে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে ও পিটিয়ে গুরুতর জখম করেন। এ সময় তার কাছে থাকা একটি স্বর্ণের চেইন ও একটি মুঠোফোন ছিনিয়ে নেয় দুর্বৃত্তরা। পরে একালাবাসী পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে শাহীনকে উদ্ধার করে গৌরীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

দাউদকান্দি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আলমগীর হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ‘‘এ ব্যাপারে থানায় একটি মামলা হয়েছে। আসামিদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান চলছে।’

সূত্রঃ আমাদের সময়

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন:

ভালো লাগলে শেয়ার করুনঃ