ডেস্ক রিপোর্টঃ ‘সরকারের উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডের প্রচারপত্র’ বিতরণে আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য এবং কুমিল্লা-৫ আসনের (বুড়িচং-ব্রাহ্মণপাড়া) সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট আবদুল মতিন খসরুর অনুসারীদের বাধা এবং মামলা-হামলার মাধ্যমে হয়রানির অভিযোগ করা হয়েছে।

এ অভিযোগ করেছেন একই আসন থেকে আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগেরই মনোনয়নপ্রত্যাশী এবং সেক্টর কমান্ডার্স ফোরাম ঢাকা বিভাগের আইন বিষয়ক সম্পাদক ব্যারিস্টার সোহরাব খান চৌধুরী। শনিবার (১১ নভেম্বর) দুপুরে কুমিল্লা নগরের একটি রেস্তোরাঁয় সংবাদ সম্মেলন করে এ অভিযোগ করেন তিনি।

লিখিত অভিযোগে ব্যারিস্টার সোহরাব বলেন, সরকারের উন্নয়ন কর্মকাণ্ডের তথ্যচিত্র প্রচারপত্রের (লিফলেট) মাধ্যমে জনগণের মাঝে ছড়িয়ে দিতে গিয়ে হামলা-মামলার শিকার হতে হচ্ছে।

তিনি বলেন, কুমিল্লা-৫ আসন এলাকার বিভিন্ন স্থানে আমি আমার স্থানীয় নেতা-কর্মীদের নিয়ে গণসংযোগের পাশাপাশি সরকারের গত ৯ বছরের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডের তথ্য সম্বলিত ‘বিশ্ব মানবতার প্রতীক শেখ হাসিনা একটি অনুভূতির নাম’ শীর্ষক প্রচারপত্র বিলির কর্মসূচি অব্যাহত রেখেছি। এতে আমার বিরুদ্ধে প্রতিহিংসাপরায়ণ হয়ে ওঠে দলের প্রতিপক্ষের স্বার্থান্বেষী লোকজন। তারা এ প্রচারপত্র বিলি ও প্রচারণায় বাধা প্রদান, মামলা-হামলার মাধ্যমে আমাদের হয়রানি ও হুমকি প্রদর্শন করে চলছে।

‘এরইমধ্যে বুড়িচং ও ব্রাহ্মণপাড়ার বিভিন্ন স্থানে লাগানো বঙ্গবন্ধু, প্রধানমন্ত্রী , আমার ছবি ও সরকারের উন্নয়নের তথ্য সম্বলিত বিলবোর্ড, ফেস্টুন ভেঙে ফেলার মতো প্রতিহিংসামূলক কর্মকাণ্ড শুরু করেছে প্রতিপক্ষের দুষ্কৃতিকারীরা।’ অভিযোগ করেন সোহরাব খান চৌধুরী।

এছাড়া প্রতিপক্ষের হামলায় নিজের নেতাকর্মী আহত ও কয়েকজনকে মামলার আসামি করার অভিযোগও তোলেন আওয়ামী লীগের এ মনোনয়নপ্রত্যাশী।

এ ব্যাপারে তিনি কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ ও সরকারের হস্তক্ষেপের দাবি জানান।