ডেস্ক রিপোর্টঃ কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামের ধোড়করা-চাঁনকার দীঘি সড়কের পাশে পাঠানপাড়ার একটি কবরস্থানে চারদিন আগে বৃদ্ধ মহিলাকে (৬৮) রেখে যায় তার স্বজনরা। সড়ক থেকে মহিলাকে স্পষ্টভাবে দেখা না যাওয়ায় ঘটনা জানাজানি হয়নি। বৃহস্পতিবার বিকেলে সাংবাদিকদের মাধ্যমে খবর পেয়ে ওই বৃদ্ধাকে উদ্ধার শেষে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে স্থানীয় থানা পুলিশ।

স্থানীয়রা জানায়, কে বা কারা চারদিন আগে খুরশিদা বেগম নামের বৃদ্ধ মহিলাটিকে কবরস্থানে রেখে যায়। এ সময় তার পাশে চারটি পানির বোতল, একটি কয়েল ছিল। তিনি কথা বলতে পারেন। কিন্তু নিজের নাম, গ্রাম বা অন্য পরিচয় কারও কাছে বলছেন না। সন্তানদের নাম জিজ্ঞেস করলে ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে বলেন, ক্যান্টনম্যান্ট (কুমিল্লা) এলাকার মেহেরাজের জামাই রায়হান ও বিজয়পুরের সবুজের বাপে জানে। তিনি আর কিছুই বলতে চান না। গত চারদিন আশপাশের মহিলারা খাবার নিয়ে এলে তিনি গ্রহণ করেছেন।

এ ব্যাপারে কনকাপৈত পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের এএসআই কামাল হোসেন জানান, বৃহস্পতিবার বিকেলে খবর পেয়ে চৌদ্দগ্রাম থানার অফিসার ইনচার্জ আবদুল্লাহ মাহফুজের নির্দেশে ওই বৃদ্ধ মহিলাকে উদ্ধার শেষে চৌদ্দগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

সূত্রঃ ইত্তেফাক