ডেস্ক রির্পোটঃ কুমিল্লায় চাঞ্চল্যকর শহিদুল ইসলাম হত্যা মামলার অন্যতম আসামি মাহাবুবকে গ্রেফতার করেছে গোয়েন্দা পুলিশ। রবিবার রাতে গ্রেফতারকৃত মাহাবুব(৪৮) ওই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. ইরফানুল হকের আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছেন।

এর আগে রবিবার রাতে নোয়াখালির চাটখিল এলাকা থেকে মাহাবুবকে গ্রেফতার করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ডিবির এসআই সহিদুল ইসলাম পিপিএম। গ্রেফতারকৃত মাহাবুব জেলার আদর্শ সদর উপজেলার জোড়ামেহের গ্রামের মো. কোমর আলীর ছেলে।

ডিবি সূত্রে জানা যায়, চলতি বছরের গত ১৮ সেপ্টেম্বর রাতে জেলার আদর্শ সদর উপজেলার জোড়ামেহের গ্রামের শহিদুল ইসলামকে (৬০) পূর্ব শক্রতার জের ধরে মাহাবুবসহ অন্যান্যরা পরিকল্পিতভাবে কুপিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনার পর দিন নিহতের মেয়ে উম্মে সালমা নার্গিস বাদী হয়ে মাহাবুব সহ ৮ জনকে আসামি করে কোতোয়ালি মডেল থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। প্রায় ২ মাস পুলিশ মামলাটি তদন্তের পর গত সপ্তাহে মামলাটি তদন্তের দায়িত্ব দেয়া হয় ডিবি পুলিশকে।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিবির এসআই সহিদুল ইসলাম পিপিএম জানান, ভিকটিমের সঙ্গে মাহাবুবসহ অন্যান্য আসামিদের দীর্ঘদিনের ব্যক্তিগত বিরোধের জের ধরে এ হত্যাকাণ্ড ঘটেছে। হত্যাকাণ্ডের পর আসামিরা আত্মগোপনে চলে যায়।

গোপন সূত্রে খবর পেয়ে রবিবার রাতে মামলার অন্যতম আসামি

মাহাবুবকে নোয়াখালির চাটখিল থেকে গ্রেফতার করা হয়। সোমবার দুপুরে মাহাবুব ওই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকারসহ, কারণ এবং সরাসরি অংশ নেয়া অপর আসামিদের নাম প্রকাশ করে সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. ইরফানুল হকের আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছেন। হত্যাকাণ্ডে জড়িত অপর আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে বলেও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা জানিয়েছেন।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: