কুমিল্লায় স্কুলছাত্রীকে ইউটিউব তারকা বানিয়ে দেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগে জাহিদ চৌধুরী নামে এক অ্যাডভোকেটকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব।

মঙ্গলবার (৪ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় র‍্যাব-১১ এর সিপিসি-২, কুমিল্লার উপ-পরিচালক মেজর মোহাম্মদ সাকিব হোসেন স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে জানা যায়, কুমিল্লা নগরীর দৌলতপুর রেলগেট এলাকায় বসবাসকারী এডভোকেট জাহিদ চৌধুরী নিজেকে একজন জনপ্রিয় ইউটিউবার হিসেবে পরিচয় দেয়। এছাড়া বিভিন্ন ছেলে-মেয়েদের ইউটিউব সেলিব্রেটি করার মাধ্যমে তাদেরকে আর্থিকভাবে সাবলম্বী করেছে বলে বলে প্রচার করে বেড়ায়। এই প্রলোভনে নগরীর ২য় মুরাদপুর এলাকার এক স্কুলছাত্রীর সাথে ঘনিষ্ট সম্পর্ক গড়ে তোলে জাহিদ।

পরে গত ২৫ নভেম্বর জাহিদ চৌধুরী জেলার সদর দক্ষিণ থানাধীন মধ্যম আশ্রাফপুর এলাকার একটি ফ্ল্যাটে ভুক্তভোগী ছাত্রীকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এদিকে ছাত্রীর পরিবার বিষয়টি জানতে পেরে কুমিল্লা ছেড়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া চলে যায়।

পরে জাহিদ চৌধুরী কৌশলে ওই ছাত্রীর সাথে যোগাযোগ করে পুনরায় কুমিল্লা নিয়ে আসে এবং একাধিকবার শারীরিক সম্পর্ক স্থাপনে বাধ্য করে। এছাড়াও শারীরিক সম্পর্কের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে মুখ বন্ধ রাখে তার।

এ বিষয়ে স্কুলছাত্রীর পরিবার অভিযোগ দিলে র‍্যাব সোমবার রাতে অভিযান চালিয়ে এড. জাহিদ চৌধুরিকে গ্রেফতার করে। এসময় তার বাসা থেকে ওই স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার করা হয়।

সূত্রঃ যমুনা টিভি

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: