ডেস্ক রিপোর্টঃ রাজধানীর পশ্চিম নাখালপাড়ার রুবি ভিলায় অভিযানে নিহত তিন ‘জঙ্গির’ মধ্যে একজনের পরিচয় পাওয়ার কথা জানিয়েছে র‌্যাব।

র‌্যাব-৩ এর অধিনায়ক এমরানুল হাসান বলেন, গত শুক্রবার সকালে অভিযান শেষে রুবি ভিলার পঞ্চম তলায় যে দুটি জাতীয় পরিচয়পত্র পাওয়া গিয়েছিল, তার মধ্যে একটির সঙ্গে নিহত একজনের আঙুলের ছাপ মিলেছে।

সে অনুযায়ী, ওই জঙ্গির নাম মেজবাহ উদ্দিন। বাবার নাম এনামুল হক, মায়ের নাম তাহমিনা আক্তার। গ্রামের বাড়ি কুমিল্লা সদরে।

এমরানুল হাসান বলেন, “মেজবার বাবা-মা, ভাই ও স্ত্রীকে ঢাকায় আনা হচ্ছে। তারা মৃতদেহ দেখলে মেজবাহ সম্পর্কে বিস্তারিত জানা যাবে।”

আঙুলের ছাপ মিলিয়ে এবং অন্যান্য মাধ্যমে বাকি দুজনের পরিচয়ও জানার চেষ্টা চলছে বলে এই র‌্যাব কর্মকর্তা জানান।

রুবি ভিলায় অভিযানের ঘটনায় তেজগাঁও থানায় সন্ত্রাসবিরোধী আইনে একটি মামলাও করা হয়েছে।

র‌্যাব বলছে, নিহত ওই তিন তরুণ নিষিদ্ধ জঙ্গি দল জেএমবির সদস্য।  তাদের মধ্যে একজন দুই ভাইকে নিয়ে থাকার কথা বলে রুবি ভিলার পঞ্চম তলার একটি কক্ষ ভাড়া নেয়। সে সময় তিনি জানান, তার নাম জাহিদ, চাকরি করেন একটি বেসরকারি কোম্পানিতে।

কিন্তু অভিযান শেষে ওই ঘর থেকে দুটি পিস্তল, তিনটি ইম্প্রোভাইজড এক্সপ্লোসিভ ডিভাইস (আইইডি), তিনটি সুইসাইড ভেস্ট, ১৪টি ডেটোনেটর, চারটি পাওয়ার জেলের পাশাশি দুটি জাতীয় পরিচয়পত্র উদ্ধার করে র‌্যাব।

দুটি জাতীয় পরিচয়পত্রের ছবি একই রকম হলেও একটিতে নামের জায়গায় লেখা ছিল জাহিদ, অন্যটিতে সজীব। এ কারণে র‌্যাবের ধারণা হয়, দুটি এনআইডিই হয়ত জাল।

সূত্রঃ বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: