শুক্রবার দুপুরে অভিনব কায়দায় কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) এক শিক্ষার্থীর মোবাইল ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে। কুবি ক্যাম্পাস-সংলগ্ন ময়নামতি জাদুঘরের পেছনের রাস্তায় (২৮ জানুয়ারি) এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, ছিনতাইয়ের শিকার তামান্না বিনতে জামান কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের ১১তম আবর্তনের শিক্ষার্থী। তিনি ইসমাইল খান মঞ্জিলে থাকেন।

সিসি ক্যামেরা ফুটেজ থেকে দেখা যায়, ওই বাড়ি থেকে দুইজন বান্ধবীর সঙ্গে রাস্তায় বের হতেই একটি নীল রঙের সুজুকি জিক্সার মোটরসাইকেল দিয়ে দুইজন ছিনতাইকারী এসে টান দিয়ে তামান্নার হাত থেকে রিয়েলমি ৫ মডেলের একটি মোবাইল নিয়ে পালিয়ে যায়।

তামান্না বিনতে জামান বলেন, আমরা ক্যাম্পাসে যাচ্ছিলাম। এ জন্য মেস থেকে রাস্তায় বের হতেই চলন্ত বাইকে থাকা ছিনতাইকারীরা আমার হাত থেকে মোবাইল টান দিয়ে নিয়ে যায়। এভাবে মোবাইল নেবে সেটা আমার অকল্পনীয় ছিল।

ইসমাইল খান মঞ্জিলের মালিকের ছেলে নাইম খান বলেন, আমরা নিরাপত্তার স্বার্থে বাসার সামনে সিসি ক্যামেরা বসিয়েছি। সিসি ক্যামেরায় ছিনতাইয়ের ঘটনা সব স্পষ্ট দেখা যায়। আশা করি পুলিশের সহায়তায় আমরা মোবাইল উদ্ধার করতে পারব। আর মোবাইল উদ্ধার করতে আইনি জটিলতায় আমরা ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীকে সর্বোচ্চ সহায়তা করব।

কুমিল্লা সদর দক্ষিণের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা দেবাশীষ চৌধুরী আরটিভি নিউজকে বলেন, খুব দ্রুত ঘটনাস্থলে কোটবাড়ি পুলিশ ফাঁড়ির একটা টিম পাঠাচ্ছি। তারা বিষয়টা পর্যবেক্ষণ করে ছিনতাইকারীদের শনাক্ত করার চেষ্টা করবে।

কোটবাড়ি পুলিশ ফাঁড়ির এস আই মাববুব হোসেন বলেন, আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে সিসি ক্যামেরার সাহায্যে ছিনতাইকারীদের শনাক্ত করার চেষ্টা করছি।

এ বিষয়ে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. কাজী মোহাম্মদ কামাল উদ্দিন বলেন, আমি এখন জানতে পারলাম, এর আগে কেউ অবগত করেনি। যেখানে ঘটনাটা ঘটনাটা ঘটেছে তার কাছাকাছিই পুলিশ ফাঁড়ি আছে। দুপুরে এমন ঘটনা দুঃখজনক৷ আমি পুলিশের সঙ্গে কথা বলছি, যেন ব্যবস্থা নেওয়া হয়।

ইউটিউবে আমাদের চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন: